ফুলকপি পুষ্টিগুণে ভরপুর। এই সবজিটি ঝোল করে, ভেজে, বেক করে, ভাঁপিয়ে- বিভিন্নভাবে খাওয়া যায়। ফুলকপির চার পদের রেসিপি দিয়েছেন নাজিয়া ফারহানা

মসলা মিশিয়ে
উপকরণ :টুকরা করে কাটা ফুলকপি দেড় কাপ, কিউব করে কাটা আলু এক কাপ, টমেটো টুকরা আধা কাপ, পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, আস্ত জিরা এক চামচ, হলুদ, মরিচ ও ধনে গুঁড়া এক চা চামচ, আদা ও রসুন বাটা এক টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, তেল দুই টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি অল্প, আদা মিহি কুচি এক চা চামচ, কাঁচামরিচ দুটি।

প্রস্তুত প্রণালি :কড়াইয়ে তেল দিয়ে তাতে আস্ত জিরা দিন। পেঁয়াজ কুচি দিয়ে অল্প আঁচে নাড়ূন। একে একে মসলাগুলো দিন। পানি ও লবণ দিয়ে কষিয়ে নিন। কষানোর পর তাতে ফুলকপি ও আলুর টুকরাগুলো দিন। টমেটো টুকরা ও আধা কাপ গরম পানি দিয়ে ঢাকনা লাগিয়ে দিন। মধ্যম আঁচে ২০ মিনিট রান্না করুন। পানি শুকিয়ে এলে ভাজা ভাজা করুন। নামানোর আগে কাঁচামরিচ, ধনেপাতা কুচি, আদা কুচি ছিটিয়ে দিন। এবার রুটি বা ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

কেক
উপকরণ :ফুলকপি একটি, গাজর আধা কাপ, ময়দা এক কাপ, ডিম চারটি, বেকিং পাউডার দুই টেবিল চামচ, তেল এক কাপ, মাখন বা ঘি দুই টেবিল-চামচ, পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, কাঁচামরিচ কুচি চারটি, গোলমরিচের গুঁড়া এক চা চামচ, সয়া সস দুই টেবিল চামচ, গ্রেড করা পনির দুই টেবিল চামচ, লবণ পরিমাণমতো, কালিজিরা আধা চা চামচ, ক্যাপসিকাম একটি।

প্রস্তুত প্রণালি :ফুলকপি ও গাজর ছোট টুকরা করে হালকা ভাঁপ দিয়ে নিন। প্যানে তেল দিয়ে তা সামান্য ভেজে নিন। অন্য পাত্রে ডিম, ময়দা, সামান্য পানি দিয়ে গুলিয়ে সব উপকরণ দিয়ে মেশান। একটি সসপ্যানে কাগজে তেল মেখে প্রথমে ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজ, মরিচ কুচি ও কালিজিরা বিছিয়ে মিশ্রণটি ঢালুন। অন্য পাত্রে বালু বিছিয়ে কেকের পাত্রটি ঢেকে চুলায় বসিয়ে দিন। আধঘণ্টা পর কেকটি ফুলে উঠলে নামিয়ে নিন।

কাটলেট
উপকরণ :গোলমরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, শুকনা মরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, ভাজা জিরার গুঁড়া এক চা চামচ, দারুচিনি গুঁড়া আধা চা চামচ, সিরকা এক টেবিল চামচ, আদা বাটা আধা চা চামচ, লবণ আধা চা চামচ, চিনি এক চা চামচ, পেঁয়াজ কুচি চার টেবিল চামচ, কাঁচামরিচ চারটি, তেজপাতা একটি, ডিম ফেটানো একটি, বিস্কুটের গুঁড়া এক কাপ, মাখন ৫০ গ্রাম, তেল এক টেবিল চামচ। ফুলকপি, গাজর, মটরশুটি, আলু, পালংশাক, পেঁপে, কাঁচকলা- সব মিলিয়ে সবজি এক কেজি।

প্রস্তুত প্রণালি :পেঁয়াজ, কাঁচামরিচ, তেজপাতা বেশি আঁচে গরম তেলে দু-তিন মিনিট ভাজুন। এগুলো পাটায় বা ব্লেন্ডারের সাহায্যে বেটে নিন। চার-পাঁচ রকমের সবজি অটো কুক বা মাইক্রো পাওয়ারে ছয় মিনিট আধা সিদ্ধ করুন। সবজি নামিয়ে চটকে নিন। সব উপকরণ সবজির সঙ্গে মিলিয়ে নিন। সবজি দিয়ে কাটলেট তৈরি করুন। কাটলেটে ডিম মেখে বিস্কুটের গুঁড়ায় গড়িয়ে ১০ মিনিট ফ্রিজে রাখুন। প্রতি ছয়টি কাটলেট ছয় মিনিট রান্না করুন। হয়ে গেলে গরম গরম পরিবেশন করুন।


ফুলকপির ফ্রাইড রাইস
উপকরণ :গ্রেট করা ফুলকপি দুই কাপ, মটর ও গাজর এক কাপ, ফেটানো ডিম দুটি, চিংড়ি মাছ ১০০ গ্রাম, কিউব করে কাটা পেঁয়াজ ১/৪ কাপ, থেঁতো করা রসুন তিন-চার কোয়া, সয়া সস দু-তিন টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি পরিমাণমতো, কাঁচামরিচ কুচি দু-তিনটি, অলিভ অয়েল দুই টেবিল চামচ, গোলমরিচ গুঁড়া স্বাদমতো, লেবু ও সসেজ এক চা চামচ করে, লবণ স্বাদমতো।

প্রস্তুত প্রণালি :গাজর ও মটর ফুটন্ত গরম পানিতে ভাঁপ দিয়ে পানি ঝরিয়ে রাখুন। প্যানে সামান্য তেল গরম করে সামান্য লবণ ও গোলমরিচ গুঁড়া দিয়ে ডিম ফেটিয়ে ওমলেট করে নিন। ওমলেট ঝুরি ঝুরি করে রাখুন। একই প্যানে দুই টেবিল চামচ তেল গরম করে রসুন দিন। রসুনের সুগন্ধ বের হলে পেঁয়াজ, গাজর ও মটর দিয়ে চার-পাঁচ মিনিট ভাজুন। এবার ফুলকপির রাইস মেশান। কয়েক মিনিট ফুলকপির রাইস ভেজে ডিম, চিংড়ি মাছ, সয়া সস, গোলমরিচ গুঁড়া ও কাঁচামরিচ মেশান। সব শেষে লেবুর রস, জেস্ট, ধনেপাতা কুচি মিশিয়ে নামিয়ে ফেলুন।