চলতি বছর সেপ্টেম্বরে চীনের হাংঝুতে হবে এশিয়ান গেমস।  আন্তর্জাতিক গেমসকে লক্ষ্য ধরে নারী ও পুরুষ কাবাডি দলকে উন্নত প্রশিক্ষণের জন্য দিল্লির সেই রাও একাডেমিতে পাঠাচ্ছে কাবাডি ফেডারেশন। আগামী মাসের শুরুর দিকেই যাবে তারা।

এই মুহূর্তে ভারতীয় কোচের অধীনেই আছে জাতীয় দল। সাজু রাম গয়াত ও রমেশ বিন্দিগিরির অধীনে গত বছরের আগস্ট থেকে অনুশীলন ক্যাম্প চলছে। এই কোচের অধীনেই এ মাসে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক কাবাডিতে শিরোপা ধরে রেখেছে বাংলাদেশ। এখন এশিয়ান গেমসই মূল লক্ষ্য।

কাবাডি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক ও বাংলাদেশ পুলিশের ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি হাবিবুর রহমান বলেন, 'আন্তর্জাতিক কাবাডিতে ভালো করার লক্ষ্য নিয়ে আমরা কাজ করছি। দেশেও দুইজন বিদেশি কোচ (সাজু রাম গয়াত ও রমেশ বিন্দিগিরি) রেখে গত বছর আগস্ট থেকে ক্যাম্প চালিয়ে যাচ্ছি। ফিটনেসের জন্য জিমও করে দিয়েছি। ফেডারেশনের পক্ষ থেকে খেলোয়াড়দের সুযোগ-সুবিধা দিতে কোনো কার্পণ্য নেই। খেলোয়াড়রা মাঠে খেলে সাফল্য এনে দিলে আমাদের এই পরিশ্রম স্বার্থক হবে।'

একটা সময় এশিয়াডে পদক নিশ্চিত ছিল বাংলাদেশের। ১৯৯০, ১৯৯৪ ও ২০০৬ সালে রুপা জেতে বাংলাদেশ। এর মাঝে দুইবার ব্রোঞ্জ। কিন্তু এখন ব্রোঞ্জও হাতছাড়া। মেয়েরা ২০১০ ও ২০১৪-তে ব্রোঞ্জ জিতেছিল। গত আসরে তাদেরও ফিরতে হয় শূন্য হাতে। এবার পদক ফেরানোটাই তাই চ্যালেঞ্জ।