অ্যারেনা বার্মিংহামের মেইন মিডিয়া হাব থেকে শুরু করে সিটি সেন্টারে নেমে এসেছে নীরবতা। গত ১২ দিন পুরো বার্মিংহামকে একই সুতোয় গেঁথে রেখেছিল কমনওয়েলথ গেমস। ৭২টি দেশের ৫ হাজারেরও বেশি ক্রীড়াবিদের মিলনমেলায় মুখর হওয়া ঐতিহ্যবাহী ভিক্টোরিয়া স্কয়ার এখন ভাঙা হাট। চার বছর পর ২০২৬ সালে অস্ট্রেলিয়ার ভিক্টোরিয়ায় বসবে কমনওয়েলথ গেমসের ২৩তম আসর।

সোমবার রাতে আলেক্সান্ডার স্টেডিয়ামে সমাপনী অনুষ্ঠানেও বেজেছে বিউগলের সুর। সমাপনীর আগে পদকের লড়াইয়ে অস্ট্রেলিয়াকে দারুণ চ্যালেঞ্জ জানিয়েও সেরা হতে পারেনি ইংল্যান্ড। যথারীতি কমনওয়েলথ গেমসে অস্ট্রেলিয়ার আধিপত্য। ৬৭টি স্বর্ণ, ৫৭টি রৌপ্য, ৫৪টি ব্রোঞ্জসহ মোট ১৭৮টি পদক জিতে সেরা হয়েছে অসিরা। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ইংল্যান্ড জিতেছে ৫৭ স্বর্ণ, ৬৬ রৌপ্য, ৫৩ ব্রোঞ্জসহ মোট ১৭৬টি পদক।

বার্মিংহাম গেমসটি ভুলে যেতে চাইবেন বাংলাদেশের অ্যাথলেটরা। সাঁতার, অ্যাথলেটিকস, জিমন্যাস্টিকস, বক্সিং, ভারোত্তোলন, কুস্তি- কোনো ইভেন্টেই বাছাইয়ের গণ্ডি পার হতে পারেননি ইমরানুর রহমান-আলী কাদের হকরা। অথচ প্রতিবেশী দেশ ভারত ও পাকিস্তান যেমন স্বর্ণ জিতেছে, তেমনি করে লঙ্কানরা রৌপ্য ও ব্রোঞ্জ পদক জিতে গেমসটি স্মরণীয় করে রেখেছে। ক্রীড়াবিদদের সাফল্য-ব্যর্থতার গল্পের সঙ্গী হতে পুরো বার্মিংহাম সেজেছিল নতুন রূপে। 'স্পোর্টস লাভার' ইংলিশদের ঢল নেমেছিল সব স্টেডিয়ামে।