হাজারতম টেস্টে রোমাঞ্চকর জয় ইংল্যান্ডের

প্রকাশ: ০৪ আগস্ট ২০১৮      

অনলাইন ডেস্ক

ছবি: রয়টার্স ইউকে

ইংল্যান্ডের হাজারতম টেস্টটা নিজের করে নিতে পারতেন ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি। ইংলিশ বোলারদের বিপক্ষে যেখানে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের নাভিশ্বাস উঠেছে সেখানে প্রথম ইনিংসে ১৪৯ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন তিনি। ইংল্যান্ডের ২৮৭ রানের জবাবে ২৭৪ রানে শেষ হয় ভারতের ইনিংস। এরপর দ্বিতীয় ইনিংসে স্বাগতিক ইংল্যান্ডকে ১৮০ রানে অলআউট করে দেয় কোহলির দল। স্বপ্ন দেখে জয়ের। আর জয়ের জন্য কোহলির দলের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ১৯২ রানের। 

কিন্তু ওই রানই ভারতের জন্য কঠিন করে তোলেন ইংলিশ বোলাররা। ১৯ রানে প্রথম এবং ২২ রানে দুই উইকেট তুলে নেয় ইংল্যান্ড। এরপর ৬৩ রানেই ভারতের ৪ উইকেট তুলে নেন ব্রড-স্টোকস। তবে ইংল্যান্ডের সামনে দুঃস্বপ্ন হয়ে দাঁড়ান কোহলি। ভারত নিয়মিত উইকেট হারালেও দেয়াল হয়ে দাঁড়িতে থাকেন তিনি। দিন শেষে অপরাজিত থাকা কোহলিকে নিয়ে ইংলিশ বোলার জেমি অ্যান্ডারসন বলেন, কোহলিকে আউট করার স্বপ্ন নিয়ে রাতে ঘুমাতে যাবো। সেই স্বপ্ন অবশ্য দিনের শুরুতেই সত্যি হয়েছে। 

দারুণ খেলতে থাকা ভারতীয় অধিনায়ককে ৫১ রানে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলে সাজঘরে ফেরান ইংলিশ অলরাউন্ডার বেন স্টোকস। আর ম্যাচ চলে আসে ইংল্যান্ডের হাতে। শেষের দিকে হার্দিক পান্ডিয়া যা একটু প্রতিরোধ গড়েন। তবে ইংল্যান্ডের হাজারতম টেস্ট জয়ের পথে কাঁটা হয়ে দাঁড়তে পারেননি তিনি। 

ইতিহাসের একমাত্র দল হিসেবে এক হাজার টেস্ট খেলার মাইলফলক ছুয়েছে ইংল্যান্ড। আর সেই ঐতিহাসিক ম্যাচটি ৩১ রানের রোমাঞ্চকর জয় দিয়ে ইতি টেনেছে ইংলিশরা। আর ঐতিহাসিক এ টেস্টে ম্যাচসেরা ক্রিকেটার হয়েছেন ইংল্যান্ডের তরুণ পেসার স্যাম কারান। ২০ বছর বয়সী এই বাঁহাতি পেসার দুই ইনিংসে নিয়েছেন ৫ উইকেট।

এরমধ্যে প্রথম ইনিংসে ভারতের মূল্যবান ৪ উইকেট তুলে নেন তিনি। এছাড়া দারুণ পেস, সুইং দিয়ে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের বেশ অস্বস্তিতে ফেলেন তিনি। আর দ্বিতীয় ইনিংসে দুর্দান্ত বল করে ৪ উইকেট তুলে নেন বেন স্টোকস। ভারতের পক্ষে প্রথম ইনিংসে ৪ উইকেট নেন অশ্বিন। মোহাম্মদ সামি নেন ৩ উইকেট। এরপর দ্বিতীয় ইনিংসে ইশান্ত শর্মা ইংল্যান্ডের ৫ উইকেট তুলে নেন। অশ্বিন ঝুলিতে পোরেন ৩ উইকেট।