করোনা ভাইরাসের প্রভাবে চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগের ম্যাচে দর্শক শূন্য মাঠে খেলবে বার্সেলোনা এবং নাপোলি। এছাড়া পিএসজি এবং বরুসিয়া ডর্টুমুন্ডের ম্যাচেও থাকবে না কোন দর্শক।  আগামী ১২ মার্চ প্যারিসে গড়াবে পিএসজি-বরুসিয়া ডর্টমুন্ডের ম্যাচ। ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যুতে বার্সা ১৯ মার্চ মুখোমুখি হবে নাপোলির। 

সারা বিশ্বেই করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ছড়িয়ে পড়েছে। এর মধ্যে ইতালির ফুটবল করোনার কারণে সবচেয়ে বেশি ঝুঁকির মধ্যে আছে। সেখানে এরই মধ্যে কয়েকটি ম্যাচের সূচি নতুন কর ঠিক করা হয়েছে। এছাড়া শূন্য স্টেডিয়ামেও চলছে ম্যাচ।

ইউরোপিয়ান ফুটবলের গভর্নিং বোর্ডির সভাপতি আলেক্সজান্ডার সেফারিন বলেন, আমরা করোনা প্রাদুভার্বের সঙ্গে লড়াই করছি এবং আশা করছি শেষ পর্যন্ত আমরা সফল হবো। অনেক কিছুর মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে আমাদের। রাজনৈতিক অস্থিরতা আছে, নিরাপত্তার চিন্তা আছে। এর মধ্যে আবার করোনাভাইরাস। চলুন আমরা আশাবাদী হই। সময় নিশ্চয় আমাদের পক্ষে আসবে।'

এদিকে করোনা প্রভাবে ফ্রান্সের লিগ ওয়ান কতৃপক্ষ মাত্র এক হাজার দর্শকের ম্যাচ দেখার সুযোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। নেইমারদের তাই লিগ ম্যাচও এক প্রকার ফাঁকা গ্যালারির সামনে খেলতে হবে।

চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ষোলোর প্রথম লেগে পিএসজি ২-১ গোলে ডর্টমুন্ডের মাঠ থেকে হেরে এসেছে।  ঘরের মাঠে ঘুরে দাঁড়ানোর ম্যাচে তাই দর্শকের উৎসাহ পাচ্ছেন না নেইমার-এমবাপ্পেরা। ওদিকে প্রথম লেগে নাপোলির মাঠ থেকে ১-১ গোলের সমতা নিয়ে মাঠ ছাড়ে বার্সা।