পাঁচ মাস পর আবারও শুরু হচ্ছে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ। দুই লেগ বিশিষ্ট প্রতিযোগিতার রাউন্ড অব সিক্সটিনে আট দলের দুই লেগ শেষ, তবে বাকি এখনও আরও আট দলের। সেই আট দলের দ্বিতীয় লেগের চার ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে আজ ও আগামীকাল। প্রথম দিনে জুভেন্তাসের মাঠে নামছে ফরাসি ক্লাব লিঁও; আর ম্যানসিটির ইতিহাদে রিয়াল মাদ্রিদ। এর মধ্যে সিরি'এ চ্যাম্পিয়ন পিছিয়ে আছে ০-১-এ।

লা লিগার চ্যাম্পিয়ন রিয়ালও পিছিয়ে; সিটি এগিয়ে ২-১-এ। ২০১৯-২০ মৌসুমের শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগের আজকের রাতে তাই একই সময়ে দুই মাঠে চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন রিয়াল মাদ্রিদ ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো- যে জুটি এক মৌসুম আগেই জিতেছিল টানা তৃতীয় চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ট্রফি।

নির্ভার লিঁওর সামনে ক্লান্ত জুভেন্তাস

গত সপ্তাহে শেষ হওয়া সিরি'এর শিরোপা হাতে তুলেছে জুভেন্তাস। আর এপ্রিলে অপ্রত্যাশিতভাবে সমাপ্ত হয়ে যাওয়া লিগ ওয়ানে লিঁওর অবস্থান সপ্তম। চ্যাম্পিয়ন্স লিগ তো বটেই, পরের মৌসুমের ইউরোপা লিগেও জায়গা হয়নি ফরাসি ক্লাবটির। তবে আশার সলতে হয়ে টিকে আছে চলতি চ্যাম্পিয়ন্স লিগটাই। করোনায় থমকে যাওয়ার আগে রাউন্ড অব সিক্সটিনের প্রথম লেগে ১-০-তে এগিয়েও গেছে লিঁও।

এখন জুভেন্তাসের মাঠে গোলশূন্য স্কোরলাইন ধরে রাখলেও কোয়ার্টারের স্বপ্ন পূরণ হয়ে যাবে। জুভেন্তাস আগের আট মৌসুমের ধারাবাহিকতায় এবারও লিগ শিরোপা জিতেছে বটে, তবে নয়টির মধ্যে এবারেরটিকে সবচেয়ে বাজে বলে ধরা হচ্ছে। মাওরিসিও সারির দল চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পথে হজম করেছে ৪৩ গোল। অন্য একটি দিক থেকেও জুভেন্তাসকে টপকে যাওয়ার প্রত্যাশা করতে পারে লিঁও। করোনার ঝুঁকি এড়াতে ফ্রান্স সরকার খেলাধুলা বন্ধ করে দেওয়ায় এপ্রিলের শেষ দিক থেকেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগ নিয়ে ভাবার ও অনুশীলনের সুযোগ পেয়েছে লিঁও। কিন্তু তিন মাস সিরি'এ বন্ধের পর গত দুই মাস টানা খেলার মধ্যে থাকতে হয়েছে জুভেন্তাসকে। প্রতি সপ্তাহে অন্তত দুটি করে ম্যাচ খেলতে হয়েছে রোনালদোদের।

ইতিহাদে গার্দিওলা বনাম জিদান

করোনায় খেলা বন্ধের আগে লা লিগায় বার্সেলোনার চেয়ে দুই পয়েন্ট পিছিয়ে ছিল রিয়াল মাদ্রিদ। অথচ লিগ চালুর পর ট্রফি হাতে তুলেছে রিয়ালই। এতে বার্সার নিজস্ব ব্যর্থতা যেমন ছিল, তেমনই ছিল জিনেদিন জিদানের কোচিং ম্যাজিক। করোনার আগে রাউন্ড অব সিক্সটিনের প্রথম লেগে ম্যানসিটির কাছে ১-২-এ পিছিয়ে গেছে রিয়াল। করোনা-পরবর্তী সাফল্যের ধারায় জিদান কি এবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও উতরাতে পারবেন লস ব্ল্যাঙ্কোসদের? খেলার এক দিন আগ পর্যন্ত বাজির বাজারে সিটিই অবশ্য এগিয়ে। পেপ গার্দিওলার দল খেলবে নিজের মাঠে।