অক্টোবরের মাঝামাঝিতে শ্রীলংকার বিপক্ষে স্থগিত হওয়া টেস্ট সিরিজ খেলতে পারে বাংলাদেশ। এছাড়া দুই বোর্ডের সম্মতিতে তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজও খেলানো হতে পারে। সিরিজের ব্যাপারে দুই বোর্ড আলোচনা এগিয়ে নিচ্ছে। এখন শ্রীলংকার সরকার এবং ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের ছাড়পত্রের অপেক্ষা।

শ্রীলংকা ক্রিকেট বোর্ডের ভাইস প্রেসিডেন্ট মোহন ডি সিলভা নিশ্চিত করেছেন, বাংলাদেশের এই সফরে টি-২০ সিরিজ থাকবে। যেটা তাদের পূর্বের সূচির অংশ নয়। তবে টি-২০ সিরিজটি তারা তিন টেস্টের সিরিজ থেকে একটি টেস্ট কমিয়ে খেলতে চায়।

অন্যদিকে বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্সের চেয়ারম্যান আকরাম খান বলেন, সিরিজের সিদ্ধান্ত এখনও চূড়ান্ত হয়নি, তবে আমরা ২৪ সেপ্টেম্বর নাগাদ শ্রীলংকার উদ্দেশ্যে দেশ ছাড়ার কথা ভাবছি। প্রথম টেস্টটি অক্টোবরের মাঝামাঝির দিকে শুরু হতে পারে। এক সপ্তাহের মধ্যেই সিদ্ধান্ত আসতে পারে। বিসিবি টেস্ট এবং টি-২০ সিরিজের জন্য একসঙ্গে দল পাঠানোর চিন্তা করছে।’

শ্রীলংকা সফরে গিয়ে ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইনে থাকার আগে বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা শ্রীলংকার কোন ক্রিকেটার বা একাডেমির সঙ্গে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে পারবে না। সেজন্য বোর্ড ক্রিকেটারদের অনুশীলন ঘাটতি মেটাতে হাইপারফরম্যান্স টিমও শ্রীলংকায় পাঠাতে চায়। সফরটি হলে বাংলাদেশ ও শ্রীলংকার এটি হবে করোনা পরবর্তী প্রথম আন্তর্জাতিক সিরিজ। জুলাই-আগস্টে হওয়ার কথা ছিল তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজটি। তবে করোনার কারণে দুই বোর্ড তা স্থগিত করেছিল।