বার্সায় আর থাকছেন না, এটা ঠিক করেই ফেলেছেন লিওনেল মেসি। তার আগেই নাকি ঠিক হয়েছে নতুন ঠিকানা! স্পেনের একাধিক মাধ্যম বলছে, পেপ গার্দিওলার সঙ্গে এ নিয়ে ফোনেও কথা হয়েছে আর্জেন্টাইন তারকার। আর কথা বলার পরপরই বার্সাকে ব্যুরোফ্যাক্স পাঠান। এর মধ্যে আবার পিএসজি, ইন্টারের নামও শোনা যাচ্ছে জোরেশোরে। এমনকি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডও মেসিকে কিনতে পথে নেমেছে। তারপরও মেসির ম্যানচেস্টার সিটিতে যাওয়ার সম্ভাবনাই বেশি।

এর পেছনে অবশ্য কারণও রয়েছে। একে তো ৭০০ মিলিয়ন ইউরো রিলিজ ক্লজ, তার ওপর চড়া বেতন। যেটা যে কোনো ক্লাবের পক্ষে বহন করা সম্ভব নয়। তা ছাড়া মেসি নিজেও ম্যানসিটিকে পছন্দ করেন কিছু কারণে। বার্সায় তার প্রিয় কোচ ছিল গার্দিওলা। সিটিতে গেলে তাকেই পাবেন আবার। আর সতীর্থ হিসেবেও স্বদেশি বন্ধু সার্জিও আগুয়েরোর দেখা পাচ্ছেন। শেষ পর্যন্ত বোধ হয় ইতিহাদই হবে মেসির নয়া গন্তব্য।

এদিকে, গতকাল নানা জল্পনার মধ্যে নতুন কথা শোনালেন মেসির সাবেক এজেন্ট হোসে মারিয়া মিগুয়েলা। তিনি বললেন, মেসি এরই মধ্যে ক্লাব বেছে ফেলেছেন। এমনকি কথাবার্তাও অনেকদূর হয়েছে। তবে সেটি ম্যানসিটি নয়, ইন্টার। মিগুয়েলা বলেন, 'আমার মনে হয়, মেসি ইন্টারের সঙ্গে কথা বলেছে। আর ইন্টারে যাওয়ার অনেক কারণও আছে। সেখানে ট্যাক্সের ঝামেলা নেই। ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে পাবেন। আর প্রিমিয়ার লিগে তার যাওয়াটা কঠিনই হবে।'

অন্যদিকে, পিএসজিও নজর রাখছে মেসির ওপর। ক'দিন আগে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে হারার পর পিএসজি কোচও যেন মেসির জন্য দুয়ার খুলে দেন। আর মেসি সেখানে গেলেও অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না। কেননা, পিএসজিতে তিনি পেয়ে যাবেন পুরোনো সতীর্থ নেইমারকে, পাবেন আর্জেন্টাইন বন্ধু ডি মারিয়াকেও। আর মেসির জন্য টাকা ঢালতেও বেগ পেতে হবে না পিএসজিকে।

কথা হয়েছে গার্দিওলার সঙ্গে

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে ধরাশায়ী হওয়ার পরই লিওনেল মেসির বার্সেলোনা ছাড়ার গুঞ্জন ছড়ায়। সেই গুঞ্জনের সত্যতা পাওয়া গেল মঙ্গলবার। বার্সেলোনা ক্লাবকে ব্যুরো ফ্যাক্সের মাধ্যমে মেসি জানিয়ে দেন তিনি ক্লাব ছাড়তে চান। বার্সার সঙ্গে ২০ বছরের সম্পর্কের ইতি টানতে যাচ্ছেন মেসি। আর এই কঠিন সিদ্ধান্তটি নেওয়ার আগে বার্সেলোনায় আর্জেন্টাইন তারকার সাবেক কোচ পেপ গার্দিওলার সঙ্গে কথা বলেছেন। বর্তমান ম্যানচেস্টার সিটির কোচের দায়িত্বে আছেন গার্দিওলা। ইউরোপিয়ান সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী দল বদলের ব্যাপারে আলোচনা করতে গার্দিওলার সঙ্গে কথা বলেছেন মেসি। হয়তো স্প্যানিশ এ কোচের কাছ থেকে ইতিবাচক সাড়া পাওয়ার পরই বার্সেলোনা ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেন এ ফরোয়ার্ড! ২০২১ সাল পর্যন্ত বার্সার সঙ্গে মেসির চুক্তি।