ঢাকা বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

সাকিবকে নিয়ে কেটেছে শঙ্কা

সাকিবকে নিয়ে কেটেছে শঙ্কা

পুনেতে ব্যাটিং অনুশীলন সাকিব। ছবি: এএফপি

সেকান্দার আলী, পুনে থেকে

প্রকাশ: ১৮ অক্টোবর ২০২৩ | ০৪:৪৭ | আপডেট: ১৮ অক্টোবর ২০২৩ | ০৪:৫৬

বিশ্বকাপে আসার পর থেকে বাংলাদেশ দলের কিছু কার্যক্রম বেশ নতুন মনে হচ্ছে। অনুশীলনের আগে অধিনায়ক সাকিব আল হাসানকে ব্রিফিং করতে দেখা তেমনই এক নতুন ঘটনা। বাঁহাতি এ অলরাউন্ডার নিজে অনুশীলন না করলেও ব্রিফিং দেন। বিষয়টি দলের ওপর সাকিবের কর্তৃত্ব প্রকাশ করে। কোনো সন্দেহ নেই সাকিবের দল এটি। এ কারণেই হয়তো ব্রিফিংও করেন তিনি।

গতকাল পুনের মহারাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন (এমসিএ) স্টেডিয়ামে অনুশীলন শুরুর আগে সাকিবকে ঘিরে গোল হয়ে মিটিংয়ে দাঁড়ান ক্রিকেটাররা। কোচিং স্টাফ, সাপোর্ট স্টাফ, টিম ডিরেক্টর, নির্বাচক– সবাই ছিলেন তাতে। সবাই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দাঁড়ানোর পর সাকিব বলতে শুরু করেন হাত নেড়ে নেড়ে।

অধিনায়কের সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে কী বার্তা ছিল, জানা যায়নি। তবে অনুমান করা যায়, টানা ম্যাচ খেলার ক্লান্তি ঝেড়ে ফেলার মতো গত দুই ম্যাচের ব্যর্থতা পেছনে ফেলে ভারতের বিপক্ষে ঘুরে দাঁড়ানোর আহ্বান ছিল সাকিবের পক্ষ থেকে। টাইগার দলপতি ওই মিটিংয়ে বার্তাও দেন– বৃহস্পতিবার পুনেতে তিনিই ভারতের বিপক্ষে টস করতে নামছেন।

ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বাজেভাবে হেরে যাওয়ায় বাংলাদেশ দল নিয়ে নানা গুঞ্জন রটেছে। প্রতি ম্যাচে ব্যাটিং অর্ডার পরিবর্তন করা নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন নাকি প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহের কাছে কারণ জানতে চেয়েছিলেন। উত্তরে কোচ নাকি দায় চাপিয়েছেন সাকিবের ওপর। ঢাকা থেকে পুনে সর্বত্রই এ আলাপ। যদিও ঘটনার সত্যতা মেলেনি।

অনুরূপ একটি রটনা ছিল সাকিবের ইনজুরি নিয়ে। এমআরআই রিপোর্টে চোট ধরা না পড়লেও সাকিবের ঊরুর পেশিতে টিআর আছে বলে প্রচার করেছেন টিম ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ সুজন। এক দিন আগে টিম হোটেলে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনেও ভ্রান্তিকর তথ্য গেছে বিসিবি এ পরিচালকের কাছ থেকে। যে বার্তা ফিজিও বায়েজিদুল ইসলামের দেওয়ার কথা, সেটা অন্য কেউ দিলে যা হয়, আর কি। সুজনের কারণে সোমবার ভুলবার্তা গেলেও গতকাল সঠিক বার্তা বিশ্বকে জানিয়ে দেন সাকিব নিজে।

ফুটবল দিয়ে গা গরম করে, হালকা রানিং আর লম্বা সময় নেটসেশনে ছিলেন টাইগার দলপতি। স্পিন ও পেস বোলিং নিয়ে ৪৫ মিনিটের নেটসেশনে ছিলেন তিনি। এর আগে থ্রোয়ার নিয়ে একা একা কিছুটা সময় কাটান। নেটের পেছনে ম্যাসিউর সোহেলের ছোড়া বলে করেন থ্রো ডাউন। আন্তর্জাতিক মিডিয়ার কল্যাণে সাকিবের অনুশীলনের ছবি ও ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে ক্রিকেট বিশ্বে। ভারত শিবিরে এই বার্তা পৌঁছে গেছে মুহূর্তে। যদিও দেশটির সাংবাদিকরা বিশ্বাসই করতে পারছিলেন না সাকিব ম্যাচ খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

অনুশীলনে দৌড়ঝাঁপ করতে কোনো অসুবিধা হয়নি। কিন্তু তারা তো জানেন না, সাকিবের ইনজুরি নিয়ে প্রথম থেকেই ভুল বার্তা দেওয়া হয়েছে দল থেকে। গতকাল তাই অনুশীলন শেষে টিম ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদের কাছে জানতে চাওয়া হলো– কেমন দেখলেন সাকিবকে। তার উত্তর ছিল– ‘ভালো। সমস্যা নেই।’

অনুশীলন করে সাকিব যেমন শঙ্কা দূর করে দিলেন, তেমনি কঠোর পরিশ্রম করা তাসকিন আহমেদ জানালেন, পুনেতে ভালো করবেন তারা। হঠাৎ করে এই আত্মবিশ্বাস কোথা থেকে পেলেন তাসকিন? প্রতিপক্ষ ভারত বলেই কি এ উত্তেজনা? ধর্মশালায় ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে মিক্সড জোনে পেস বোলিং ইউনিটের অকার্যকর বোলিং নিয়ে প্রশ্ন করায় যিনি কিনা মেজাজ হারিয়েছিলেন, গতকাল তিনিই ধরা দিলেন হাসিমুখে।

অভিমানের মেঘ কেটে গেছে কিনা জানতে চাওয়া হলে হেসে বললেন, ‘আসলে ভালো করতে না পারলে একটু খিটিমিটি থাকে। ভালো প্রশ্নও খারাপ লাগে। এখন ভালো আছি। সামনের ম্যাচ থেকেই ভালো কিছু হবে আশা করি। দোয়া করবেন।’ অনুশীলন শেষে তাসকিনের ড্রেসিংরুমে ফেরার পথে মুহূর্তের আলাপন গ্রিলের ভেতর থেকে। সাকিবের বেঁধে দেওয়া বিধিনিষেধের ভেতরেও ডাক শুনে হাসান মাহমুদের থমকে দাঁড়ানো বা মিষ্টি হেসে চলে যাওয়ার দৃশ্য বলছে, ভারতের বিপক্ষে কিছু একটা হবে।

আরও পড়ুন

×