রেকর্ডের পর রেকর্ড গড়ে চট্টগ্রাম টেস্টে দুর্দান্ত জয় তুলে নিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ওয়ানডে সিরিজে বিধ্বস্ত হওয়া দলটা চট্টগ্রামে 'নিশ্চিত হার' এমন ম্যাচে দেখিয়েছেন টেস্ট ক্রিকেটে মানসিক শক্তি কতটা গুরুত্বপূর্ণ। জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে চারদিন কর্তৃত্ব করা বাংলাদেশ পঞ্চম দিনে ওই জায়গায় পরাজিত হয়েছে। মাঠ ছেড়েছে হতাশার হার নিয়ে।

ম্যাচ শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে দারুণ এক সেঞ্চুরি করা বাংলাদেশ অধিনায়ক 'এক বছরের বিরতিকে' হারের একটা কারণ হিসেবে দাঁড় করিয়েছেন। এছাড়া সুযোগ তৈরি করে সেগুলো নিতে না পারা দলের বিপক্ষে গেছে বলেও মন্তব্য করেন দেশের পক্ষে সর্বোচ্চ টেস্ট সেঞ্চুরি করা মুমিনুল।

তিনি বলেন, 'মায়ার্স এবং বোনার খুবই ভালো ব্যাটিং করেছেন। তাদের কৃতিত্ব দিতেই হবে। বোলাররা তাদের বিপক্ষে সেভাবে সুযোগ তৈরি করতে পারেননি। পরে অবশ্য আমরা দারুণ কিছু সুযোগ তৈরি করেছি। কিন্তু সেগুলো নিতে পারিনি। প্রথম ইনিংসে আমরা খুবই ভালো খেলেছি এবং টেস্টে চতুর্থদিন পর্যন্ত কতৃত্ব করেছি।'

প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের পক্ষে দারুণ এক সেঞ্চুরি করেন মেহেদি মিরাজ। এছাড়া বল হাতে নেন ৪ উইকেট। দ্বিতীয় ইনিংস থেকেও চার উইকেট নেন তিনি। তারপরও পরাজিত দলে মিরাজ।

এ নিয়ে অধিনায়ক মুমিনুল বলেন, 'ব্যাট এবং বল হাতে ভালো করেছে মিরাজ। আমরা চারদিন চালকের আসনে ছিলাম। পরের টেস্টে আমাদের এখান থেকে ঘুরে দাঁড়াতে হবে। এক বছর (এগারো মাস) পরে আমরা টেস্ট খেলতে নামলাম। কাজটা তাই আমাদের জন্য কঠিন ছিল। আমাদের মানসিকভাবে আরও শক্তিশালী থাকতে হতো।'