চ্যাম্পিয়নস লিগের সুর কানে বাজতেই অন্য দল হয়ে ওঠে রিয়াল মাদ্রিদ। টানা তিন মৌসুম রোনালদো-বেল-বেনজেমা ইউরোপ সেরার শিরোপা ঘরে তুলে কথাটা প্রতিষ্ঠা করে ফেলেছিলেন। কিন্তু গত দুই মৌসুম চ্যাম্পিয়নস লিগের সুরেও ঘুম ভাঙেনি লস ব্লাঙ্কোসদের। এবার অবশ্য আটালান্টাকে শেষ ষোলোর দুই লেগেই হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে গেছে রিয়ার মাদ্রিদ।

অন্য দলগুলোকে বার্তা দিয়েছেন জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা। জানিয়ে দিয়েছেন, রোনালদো-বেল সান্তিয়াগো বার্নাব্যু ছাড়লেও করিম বেনজেমা এখনও আছেন। আছেন সের্গিও রামোস-লুকা মডরিচরা। রিয়াল মাদ্রিদ কিংবা রামোস-বেনজেমারা ফুরিয়ে গেছেন বলার সময় তাই এখনও আসেনি।

মঙ্গলবার রাতের ম্যাচে ঘরের মাঠ স্টেডিও আলফ্রেড ডি স্টেফানোয় ইতালির ক্লাব আটালান্টাকে ৩-১ গোলে হারিয়েছে রিয়াল। ম্যাচের ৩৪ মিনিটে করিম বেনজেমা দারুণ এক গোল করে দলকে প্রথম লিড এনে দেন। এরপর প্রতিপক্ষকে চাপে রাখা লস ব্লাঙ্কোসরা ৬০ মিনিটে সের্গিও রামোসের পেনাল্টি থেকে নেন দ্বিতীয় লিড।

কাউন্টার অ্যাটাক থেকে দারুণ এক বল নিয়ে আটালান্টার অর্ধে ঢুকে পড়েন তরুণ ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড ভিনিসিয়াস জুনিয়র। বক্সে ঢোকার মুখে ভিনিকে ফাউল করেন আটালান্টা অধিনায়ক। পরিষ্কার পেনাল্টি থেকে গোল করতে ভুল করেননি রামোস। এরপর ৮৩ মিনিটে এক গোল শোধ দেয় আটালান্টা।

কিন্তু স্বস্তি ধরে রাখতে পারেনি। ঠিক এক মিনিট পরেই বদলি নামা মার্কোস অ্যাসেনসিও গোল করে দলকে এনে দেন বড় জয়। দুই লেগ মিলিয়ে ৪-১ গোলে জিতে শেষ আটে পা রাখে ফ্রেঞ্চ ম্যান জিদানের শিষ্যরা। আগামী ৬ ও ৭ মার্চ মাঠে গড়াবে কোয়ার্টার ফাইনালের প্রথম লেগ। তার আগে অপেক্ষা করতে হবে শেষ আটের ড্রর। দেখতে হবে কে কাদের মুখোমুখি হয়।