ফুটবল মাঠে ইতালির সঙ্গে স্পেনের শত্রুতা ঐতিহাসিক। ইউরোপিয়ান ফুটবলের এই দুই পুরোনো শত্রু আজ ওয়েম্বলিতে মুখোমুখি ইউরো ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে। বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় লন্ডনের বিখ্যাত ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে শুরু হবে এই মহারণ।

কোয়ার্টার ফাইনালে সুইজারল্যান্ডকে টাইব্রেকারে হারিয়ে সেমিতে উঠে স্পেন। অন্যদিকে, ফিফা র‌্যাংকিংয়ে শীর্ষে থাকা বেলজিয়ামকে ২-১ গোলে হারিয়ে সেমিতে জায়গা করে নেয় ইতালি।

বাছাইপর্বের বাধা পেরোতে না পারায় ২০১৮ বিশ্বকাপে খেলতে পারেনি ইতালি। তারপর থেকে কোচ রবার্তো মানচিনির অধীনে দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়ানোর শুরু আজ্জুরিদের। ২০১৮ সালে উয়েফা নেশন্স কাপে পর্তুগালের কাছে হারের পর ইতালিকে কোন দল হারের স্বাদ দিতে পারেনি। বাছাইসহ ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে জিতেছে টানা ১৫ ম্যাচ। সবমিলিয়ে রেকর্ড টানা ৩২ ম্যাচ অপরাজিত। 

অন্যদিকে গ্রুপপর্বে সাদামাটা পারফরম্যান্স থাকলেও কোয়ার্টারে জ্বলে উঠেছিল স্পেন। অনেকেই ক্ষুধার্ত বাঘের সঙ্গে তুলনা করেছেন। কেউ কেউ বলছেন, ইতালিকে থামানোর মতো যথেষ্ট শক্তি আছে লুইস এনরিকের তারুণ্যনির্ভর দলটির।

ইউরোতে দুদলই ফর্মে থাকলে অতীত পরিসংখ্যানে এগিয়ে রয়েছে স্পেনই। এখন পর্যন্ত স্পেন-ইতালি ৩৪ বার মুখোমুখি হয়েছে। এর মধ্যে স্পেন জিতেছে ১২টি ম্যাচ, ১৩টিতে ড্র হয়েছে এবং ইতালি জিতেছে ৯টিতে। দুদলের সর্বশেষ লড়াইয়েও স্পেন জিতেছিল ৩-০ গোলে। তবে সম্প্রতি সর্বশেষ ৩২ ম্যাচে অপরাজিত ইতালি। স্পেনের বিপক্ষে ম্যাচে ইতালির জয়রথ থামবে নাকি আবারো অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়বে আজ্জুরি- সেটাই দেখার বিষয়।