আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচের দায়িত্ব থেকে সরে দাঁড়াতে পারেন রবি শাস্ত্রী। মোটামুটি নিশ্চিতভাবে নিজেই এ কথা জানিয়েছেন তিনি। কিন্তু তারপর বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্রিকেট দলটির কোচ কে হচ্ছেন এ নিয়ে এখনই শুরু হচ্ছে জল্পনা-কল্পনা। অবশ্য ভারতীয় দলের কোচ হিসেবে ফের দেখা যেতে পারে অনিল কুম্বলেকে। এই পদের জন্য কুম্বলে ছাড়াও উঠে আসছে ভিভিএস লক্ষ্মণের নামও।

আনন্দবাজার পত্রিকার খবরে বলা হয়, ২০১৬-১৭ সালে এক বছরের জন্য ভারতীয় দলের কোচ ছিলেন কুম্বলে। তাকে কোচ হিসেবে নিয়ে এসেছিলেন সচিন টেন্ডুলকর, সৌরভ গাঙ্গুলি এবং ভিভিএস লক্ষ্মণের উপদেষ্টা কমিটি। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনালে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে হারের পর সরে যেতে হয় কুম্বলেকে। শোনা যাচ্ছে, বোর্ডের তরফে কুম্বলে এবং লক্ষ্মণকে কোচের পদের জন্য আবেদন করতে অনুরোধ করা হতে পারে।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের এক কর্মকর্তা সংবাদ সংস্থা পিটিআই-কে বলেন, ‌‌'কুম্বলের ওই ভাবে বেরিয়ে যাওয়ার একটা প্রায়শ্চিত্ত প্রয়োজন। কোহলীর চাপে যে ভাবে ওকে সরিয়ে দিতে বাধ্য হয়েছিল উপদেষ্টা কমিটি, তা খুব একটা ভাল উদাহরণ নয়। তবে কুম্বলে এবং লক্ষ্মণ আবেদন করবেন কি না সেটা তাদের ব্যাপার।'

বিসিসিআই এমন কাউকে কোচ করতে চাইছে যার ক্রিকেটার হিসেবে প্রচুর অভিজ্ঞতা রয়েছে। ভারতীয় কোচই চাইছে বোর্ড। কুম্বলে এবং লক্ষ্মণের ১০০টির ওপর টেস্ট ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। কুম্বলে যেমন ভারতীয় দলের দায়িত্ব সামলেছেন, লক্ষ্মণ বেশ কিছু বছর ধরে আইপিএল-এ সানরাইজার্স হায়দরাবাদের মেন্টর হিসেবে কাজ করছেন। অভিজ্ঞতা রয়েছে দু’জনেরই।

কুম্বলে এবং লক্ষ্মণ, দু’জনেই আবেদন করলে প্রথম জনকেই বেছে নেওয়া হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা বলেন, 'ভারতের কোচ হওয়ার জন্য বোর্ড যে মাপকাঠি তৈরি করবে তাতে শুধুমাত্র ভাল ক্রিকেটার এবং কোচিংয়ের অভিজ্ঞতা থাকা ব্যক্তিরাই আবেদন করতে পারবেন।'