দুভার্গ্য যেন পিছু ছাড়ছে না লিটন দাসের! শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ম্যাচে দুটি ক্যাচ ফেলেছেন। এবার একই ম্যাচে অখেলোয়াড়সুলভ আচরণের জন্য শাস্তি পেলেন। সেদিন ব্যাট হাতে ভালো কিছু করতে পারেননি। কিন্তু লংকান পেসার লাহিরু কুমারার সঙ্গে বাগযুদ্ধে জড়িয়ে আইসিসির আচরণবিধি ভাঙেন। শান্তি সেজন্যই। তার সঙ্গে লাহিরুও শাস্তি পেয়েছেন। আর্থিক জরিমানার পাশাপাশি দু'জনই একটি করে ডিমেরিট পয়েন্ট পেয়েছেন। 

আইসিসি মাঠে বাগযুদ্ধের জন্য লিটনের ম্যাচ ফি’র ১৫ শতাংশ এবং লাহিরুর ২৫ শতাংশ জরিমানা করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে সুপার টুয়েলভে বাংলাদেশের প্রথম ম্যাচের ষষ্ঠ ওভারে। পেসার লাহিরুর বলে ড্রাইভ করতে গিয়ে লংঅফে ক্যাচ তুলে দেন লিটন। ক্যাচটি লঙ্কান অধিনায়ক দাসুন শানাকা ধরতেই বাংলাদেশি এই ব্যাটারকে কিছু একটা বলেন বোলার। তার জবাবে লিটনও কিছু একটা বলেন। পরে একে অপরের দিকে তেড়ে যান। আম্পায়ার ও দুই দলের খেলোয়াড়রা এসে তাদের ঝগড়া থামান এবং পরিস্থিতি স্বাভাবিক করেন।   

আইসিসির প্লেয়ার্স অ্যান্ড প্লেয়ার সাপোর্ট পারসোনালের আচরণবিধির এক নম্বর ধারা ভঙ্গ করায় জরিমানা করা হয়েছে দুজনকে। আইসিসি কোড অব কন্ডাক্টের অনুচ্ছেদ নম্বর ২.৫ ভেঙেছেন লাহিরু। আর লিটন ভেঙেছেন অনুচ্ছেদ নম্বর ২.২০। এ ধারা ভঙ্গের সর্বনিম্ন শাস্তি আনুষ্ঠানিক তিরস্কার এবং সর্বোচ্চ শাস্তি ম্যাচ ফি'র ৫০ শতাংশ জরিমানা, পাশাপাশি নামের সঙ্গে এক বা দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট যোগ করা। লঙ্কান পেসার বিতণ্ডার শুরু করায় তিনি বেশি শাস্তি পেয়েছেন। 

লাহিরু ও লিটন ম্যাচ রেফারি জাভাগাল শ্রীনাথের কাছে নিজেদের অপরাধ স্বীকার করেছেন। তাই এই ঘটনায় শুনানির আর প্রয়োজন হয়নি।