ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপে দলটির ‘মেইন ম্যান’ ছিলেন নেইমার জুনিয়র। রাশিয়া বিশ্বকাপেও ব্রাজিলের ভরসা ছিলেন পিএসজি তারকা। তবে তিতে দাবি করেছেন, এখন তার ব্রাজিলের জিততে নেইমারের ম্যাজিকের দরকার নেই। 

নেইমারের ম্যাজিকের দরকার না পড়লেও দক্ষিণ কোরিয়া এবং জাপানের বিপক্ষে ২৯ বছর বয়সী তারকার পেনাল্টির দরকার পড়লো তিতের। দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে ৫-১ গোলের জয়ে জোড়া পেনাল্টিতে গোল করেছিলেন নেইমার। জাপানের বিপক্ষে পেনাল্টি থেকে ১-০ গোলে দলকে জেতালেন তিনি। 

অথচ ম্যাচের আগে ব্রাজিল কোচ বলেছিলেন, ‘ব্রাজিলের দায়িত্ব নিয়ে অনেকগুলো ভুল আমার হয়েছে। কিছু ভালো সিদ্ধান্তও নিয়েছি। একটা ভালো দিক হলো অনেকগুলো খেলোয়াড় তৈরি হয়েছে। নতুন একটা প্রজন্ম বেরিয়ে এসেছে। আক্রমণে এখন আমরা একজনের ম্যাজিকের ওপর নির্ভরশীল নই।’ 

ব্রাজিল কোচ তিতে। ছবি: এএফপি

তিতের দলে টোকিও অলিম্পিক জয়ী রিচার্লিসন-ব্রুনো গুইমারেস-গ্যাব্রিয়েল মার্টিনেল্লি আছেন। ভিনিসিয়াস-রাপিনহার মতো গতি-ড্রিবলিংয়ে তুখড় ফরোয়ার্ড উঠে এসেছেন। জাপানের বিপক্ষে ম্যাচের আগে  আক্রমণভাগের সৃজনশীলতা, গতির ওপর অগাধ আস্থার কথা জানান তিতে। তবে ম্যাচে ভিনি কিংবা রাপিনহা ঝলক দেখাতে পারেননি। 

মাঝমাঠ থেকে সেন্ট্রাল ফরোয়ার্ড পর্যন্ত দাপিয়ে খেললেও নেইমার ঠিক ম্যাজিক দেখাতে পারেননি। জাপান ঘরের মাঠে যখন গোল শূন্য সমতায় শেষ করার স্বপ্ন দেখছে তখন অবশ্য পেনাল্টি থেকে (৭৭ মিনিটে) গোল করে দলকে জয় এনে দিয়েছেন নেইমার দ্য সিলভা জুনিয়র।