পর্তুগীজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর গাড়ি প্রীতির কথা প্রায় সবারই জানা। এতটাই তার গাড়ির প্রতি ভালোবাসা যে, কোথাও অবকাশ কাটাতে গেলেও সঙ্গে নেন সংগ্রহে থাকা বিলাসবহুল গাড়ি। তেমনই এক অবকাশে সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়েছে রোনালদোর বিলাসবহুল গাড়ি। তবে স্বস্তির বিষয় দুর্ঘটনায় আহত হয়নি কেউই। দুর্ঘটনার সময় রোনালদো বা তার পরিবারের কেউ সেই গাড়িতে ছিলেন না। পর্তুগিজ যুবরাজ পরিবারসহ অন্য গাড়িতে ছিলেন। খবর ডেইলি মেইলের।

স্পেনের মায়োর্কায় পরিবারসহ ছুটি কাটাতে গেছেন রোনালদো। সেখানে দুর্ঘটনার কবলে পড়েছে তার ১.৭ মিলিয়ন পাউন্ড মূল্যের বুগাত্তি ভেইরন গাড়িটি! ১ হাজার অশ্বক্ষমতার যানটির মূল্য বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ১৯ কোটি ৪৫ লাখ টাকা।

দুর্ঘটনার আগের দিন গাড়িটি চালাতে দেখা গেছে রোনালদোকে

দুর্ঘটনাটি ঘটেছে পালমা দে মায়োর্কায়। স্পোর্টস গাড়িটি চালাচ্ছিলেন রোনালদোরই এক নিরাপত্তাকর্মী। গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি বাড়ির প্রবেশ মুখের দেয়ালে গিয়ে আঘাত করে। ওই দুর্ঘটনায় বাড়িটির দেয়াল ধসে পড়ে। এ দুর্ঘটনায় অন্য কোনো গাড়ি জড়িত ছিল না। দুর্ঘটনা যে এলাকায় ঘটেছে, সেই মায়োর্কা এলাকার ট্রাফিক পুলিশ ঘটনাটির তদন্ত করছে।

এই বিষয়ে রোনালদোর কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। তবে ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করেছেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের তারকা। জানা গেছে, যার বাড়ির দেওয়ালে গাড়ি ধাক্কা মেরেছে, সেই বাড়ির মালিকের কাছে প্রতিনিধিদের পাঠান রোনালদো। তারা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

বিলাসবহুল গাড়ি সংগ্রহের ঝোঁক থাকা রোনালদোর গ্যারেজে আছে সময়ের সেরা গাড়িগুলোর অধিকাংশই। তার সংগ্রহে থাকা এসব গাড়ির মোট মূল্য ১৯৩ কোটি টাকারও বেশি। ছুটি কাটিয়ে চলতি মাসের শেষ দিকে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ক্যাম্পে যোগ দেওয়ার কথা এই পর্তুগিজ তারকার। হতাশাজনক এক মৌসুম শেষে নতুন কোচ এরিক টেন হ্যাগের অধীনে নতুন এক যুগ শুরু করতে চায় রেড ডেভিলরা।