প্রথম ম্যাচ ভেসে যাওয়ার পর দ্বিতীয় টি-২০ ম্যাচে বাংলাদেশকে ৩৫ রানে হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বলতে গেলে মিডল অর্ডার ব্যাটার রোভম্যান পাওয়েলের ঝড়ে হেরেছে সফরকারীরা। শুরুতে ক্যারিবীয়রা ১৯৩ রান তোলে। জবাবে বাংলাদেশ করতে পারে ১৫৬ রান। 

বড় ওই রানের মধ্যে পাওয়েল ২৮ বলে খেলেন ৬১ রানের টর্নডো ইনিংস। তার ছয়টি ছক্কা ও দুই চারের ইনিংসের কাছেই হেরেছে মাহমুদুল্লাহর দল। অথচ পাওয়েল দাবি করেছেন, তিনি বিগ হিটার নন। বরং একজন পরিপূর্ণ ব্যাটসম্যান হয়ে উঠেছেন। 

বাংলাদেশের বিপক্ষে জয়ের পর পাওয়েল বলেন, ‘অধিনায়ক পুরান এবং ওপেনার ব্রেন্ডন কিং প্লাটফর্ম তৈরি করে দিয়েছিলেন। আমি ক্রিজে আসার আগে তারা খুবই ভালো খেলেছেন। আমার জন্য সুযোগ ছিল স্কোরটাকে অন্য পর্যায়ে নিয়ে যাওয়ার। উইকেট যেহেতু ভালো ছিল ব্যাটার হিসেবে আমি নিজেকে প্রকাশ করতে পেরেছি।’ 

বাংলাদেশের বিপক্ষে টর্নেডো ইনিংস খেলার পথে রোভম্যান পাওয়েল। ছবি: এএফপি

পাওয়েল জানান, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিজের স্কিলের উন্নতি আনা দরকার। এই উন্নতি টেকনিকে যেমন দরকার তেমনি মানসিকভাবেও দরকার। ওই উন্নতিটা হয়েছে বলে মনে করেন পাওয়েল এবং উন্নতির ধারা ধরে রাখার আশা ব্যক্ত করেন। 

নিজের ব্যাটিং নিয়ে তিনি বলেন, ‘সত্যি বলতে, নিজেকে আর বিগ হিটার ভাবি না। বরং নিয়ন্ত্রণ রেখে নিজেকে ব্যাটার ভাবতে পছন্দ করি। কখন সিঙ্গেল নিতে হবে এবং আক্রমণ করতে হবে এই বিষয়ে ভালো সিদ্ধান্ত নিতে শুরু করেছি। এটাই আমাকে ভালো হতে সহায়তা করেছে।’

সাকিবের এক ওভারে রোভম্যান পাওয়েল ২৩ রান নিয়েছেন। তাকে অ্যাটাক করার বিষয়ে ডানহাতি ব্যাটার জানিয়েছেন, ম্যাচে গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তে কাকে অ্যাটাক করতে হবে সেটা বোঝা গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বুঝতে পারছিলেন, বল হাতে সাকিব সেরাটা করতে পারছে না। সেজন্য তিনি তাকে আক্রমণ করার পরিকল্পনা নেন।