ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সাত ম্যাচ সিরিজের শেষ ম্যাচ হেরে সিরিজ হেরেছে পাকিস্তান। পুরো সিরিজে দুই ওপেনার ছাড়া বলার মত কেউই পারফরম্যান্স দেখাতে পারেনি। সিরিজজুড়ে রান তুলতে হিমশিম খেয়েছে পাকিস্তানের মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানরা। শেষপর্যন্ত ইংল্যান্ডের ২০৯ রানের জবাবে পাকিস্তানকে থমকে যেতে হয় ৮ উইকেটে ১৪২ রানে।

পাকিস্তানের ব্যাটারদের এমন হাল দেখে ভয় হচ্ছে সাবেক স্পিডস্টার শোয়েব আখতারের। কারণ বিশ্বকাপের বাকি আছে মাত্র দুই সপ্তাহ। এমন পারফরম্যান্স যদি বিশ্বকাপেও বয়ে নিয়ে যায়, তাহলে প্রথম রাউন্ডেই বাদ পড়তে পারে পাকিস্তান। নিজের ইউটিউব চ্যানেলে এভাবেই কথা বলেছেন শোয়েব।

৪৭ বছর বয়সী সাবেক পেসার বলেছেন, 'পাকিস্তানের মিডল অর্ডারের অবস্থা ভালো নয়। ওপেনাররা পারফর্ম করতে না পারলে মিডল অর্ডার চাপে পড়ছে। এভাবে তো বিশ্বকাপে খেলা যায় না যদি আপনি তা জিততে চান। এটা খুব দুঃখজনক।'

এছাড়াও নির্বাচক মোহাম্মদ ওয়াসিম ও কোচ সাকলাইন মুশতাককেও একহাত দেখিয়েছেন শোয়েব। তিনি বলেন, 'মিডল অর্ডার নিয়ে নির্বাচকরা তেমন গুরুত্ব দেয়নি। সেখানে কোনও পরিবর্তন আনেনি।' 

ওয়াসিমকে নিয়ে তিনি বলেন, 'যখন প্রধান নির্বাচক গড়পড়তার হয়, তখন তো সিদ্ধান্তও তেমনই গড়পড়তার হয়।'

সাকলাইনের সমালোচনা করতে গিয়ে শোয়েব বলেন, 'সাকলাইন শেষ ক্রিকেট খেলেছিল ২০০২ সালে। আমি এটা বলতে চাই না কারণ সে আমার বন্ধু। কিন্তু আমি মনে করি না টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট নিয়ে তার কোনও ধারণা আছে। আমার মনে হয় না এখানে তার দক্ষতা আছে।'