ক্রাইস্টচার্চে ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে ভালো বোলিং করতে পারেননি দুই পেসার মুস্তাফিজুর রহমান ও হাসান মাহমুদ। অন্য দিকে পাকিস্তান ওপেনার মোহাম্মদ রিজওয়ান দারুণ ব্যাটিং করেছেন। তার ব্যাটে ভর করে ৫ উইকেটে ১৬৭ রান তুলেছে পাকিস্তান।

টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ওপেনিং জুটিতে ৫২ রান যোগ করেন বাবর আজম ও মোহাম্মদ রিজওয়ান। ২৫ বলে চারটি চারে ২২ রান করা বাবরকে ফিরিয়ে ওই জুটি ভাঙেন মেহেদি মিরাজ। এরপর ৪২ রান যোগ করে রিজওয়ান ও শান মাসুদ জুটি। নাসুমের বলে মাসুদ ফিরে যান ২২ বলে চারটি চার ও এক ছক্কায় ৩১ রান করে।

পাকিস্তানের পরের ব্যাটাররা ভালো করেননি। চারে নামা হায়দার আলী (৬), পাঁচে নামা ইফতিখার (১৩) ও ছয়ে নামা আসিফ আলী (৪) ব্যর্থ হন। তবে ফর্মের তুঙ্গে থাকা  ওপেনার রিজওয়ান অবিচল ছিলেন। তিনি এক প্রান্তে দাঁড়িয়ে ৫০ বলে ৭৮ রানের হার না মানা ইনিংস খেলেন। তার ব্যাট থেকে আসে সাতটি চার ও দুটি ছক্কা।

বাংলাদেশ দলের হয়ে পেসার তাসকিন আহমেদ দারুণ করেছেন। ৪ ওভারে ২৫ দিয়ে তিনি নিয়েছেন ২ উইকেট। এছাড়া স্পিনার নাসুম ৪ ওভার হাত ঘুরিয়ে ২২ রানে তুলে নেন একটি উইকেট। খারাপ করেননি মিরাজও। তিনি ২ ওভারে ১২ রান দিয়ে নেন একটি উইকেট। তবে দলের পেস বোলিংয়ের মূল ভরসা মুস্তাফিজ ৪ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে উইকেট শূন্য থাকেন। অন্য পেসার হাসান মাহমুদ ৪ ওভারে ৪২ রান দিয়ে নেন একটি উইকেট।

ত্রিদেশীয় সিরিজের উদ্বোধনী ম্যাচে একাদশে নেই নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন নুরুল হাসান সোহান। বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট এই ম্যাচেও মেক শিফট ওপেনার সাব্বির রহমান ও মেহেদি মিরাজে আস্থা রেখেছে।