বিশ্বকাপে উড়ন্ত সূচনা পেয়েছে ব্রাজিল। দলটির নাম্বার নাইন রিচার্লিসন দারুণ দুই গোল করেছেন। এর মধ্যে তার বাই সাইকেল কিকে করা দ্বিতীয় গোলটি চোখে লেগে থাকার মতো। ব্রাজিলের জয়ের ওই উচ্ছ্বাসের মধ্যে ভর করেছে নেইমারের ইনজুরির দুশ্চিন্তা।  

ম্যাচের ১০ মিনিট থাকতে ইনজুরি নিয়ে মাঠ ছাড়েন ব্রাজিলিয়ান তারকা। ম্যাচ শেষে যে ছবি ছড়িয়ে পড়েছে তাতে দেখা গেছে তার গোড়ালি বেশ ফুলে গেছে। ব্রাজিল দলের চিকিৎসক রদ্রিগো লাসমার জানিয়েছেন, নেইমারের গোড়ালি মচকে গেছে। 

তিনি জানান, প্রতিপক্ষ ডিফেন্ডারের হাঁটু জোরের ওপর এসে নেইমারের গোড়ালিতে সরাসরি আঘাত করে। যে কারণে গোড়ালি মচকে গেছে। তার গোড়ালি খানিকটা ফুলে গেছে। তাকে প্রাথমিকভাবে বেঞ্চেই বরফ চিকিৎসা (সেক) দেওয়া শুরু হয়। এখন তার ফিজিওথেরাপি শুরু হবে।

লাসমার জানিয়েছেন, নেইমারের গোড়ালিতে এক্স রে করানোর ব্যাপারে তারা তাড়াহুড়ো করছেন না। এক্স রে করানোর কোন সময় এখনও ঠিক করেননি। শুক্রবার সারাদিন তাকে পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। ওই পর্যবেক্ষণে যদি মনে হয় পরীক্ষা করানো দরকার, তারা করাবেন। তার মতে, নেইমারের ইনজুরি এতোটাই প্রাথমিক পর্যায়ে যে, তাদের পক্ষে এখনই উত্তর দেওয়া কঠিন। 

ব্রাজিল কোচ তিতে অবশ্য নেইমারের দ্রুত সেরে ওঠার ব্যাপারে আশাবাদী। তিনি আত্মবিশ্বাসী যে, ইনজুরিতে  নেইমারের বিশ্বকাপ শেষ নয়, ‘আমরা আত্মবিশ্বাসী যে, নেইমার বিশ্বকাপে খেলতে পারবে। আপনারাও নিশ্চিত থাকতে পারেন যে, নেইমার বিশ্বকাপে (সামনে) খেলবে।’

ব্রাজিলের পরবর্তী ম্যাচ সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে ২৮ নভেম্বর। গ্রুপের দ্বিতীয় সেরা দল সুইসরা। বাংলাদেশ সময় রাত ১০টার শুরু হওয়া ওই ম্যাচে নেইমার খেলতে পারবেন এমন আশা অবশ্য ব্রাজিল কোচ তিতেও দিতে পারেননি। দলটির তরুণ ফরোয়ার্ড ভিনিসিয়াস কেবল ম্যাচ শেষে বলেছেন যে, ‘তার (নেইমার) জন্য এটা একটা ধাক্কা। তবে আশা করছি গুরুতর কিছু নয়।’