পশ্চিমবঙ্গের ছোট পর্দার ও চলচ্চিত্রের পরিচিত মুখ সায়নী ঘোষ। এ অভিনেত্রীকে উদ্দেশ্যে করে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে বিপাকে বিজেপির সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। 

গত বুধবার পূর্ব বর্ধমানে নির্বাচনী সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে এমন মন্তব্য করে বসেন তিনি। তার মন্তব্যকে কেন্দ্র করে বিতর্ক শুরু হয়েছে রাজ্যে। সায়নী ঘোষের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তিনি হিন্দুদের ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করেছেন।

চলচ্চিত্র শিল্পীদের একাংশকে যৌনকর্মী উল্লেখ করে সৌমিত্র খাঁ বলেন, ‘সায়নী ঘোষরা ধর্মতলায় বসে নাটক করছে। কিছু অভিনেতা তৃণমূলের চাকরে পরিণত হয়েছে। যারা যৌনপেশার সঙ্গে যুক্ত তারা শিবলিঙ্গে কনডম পরানোর কথা বলছে।’ 

তিনি আরও বলেন, ‘আমি সায়নী ঘোষকে বলতে চাই ধর্মতলায় বসে নাটক করছো। আমাদের শিবলিঙ্গকে যারা অপমান করে, আমাদের মা মনসাকে যারা অপমান করে তারাই আসল যৌনকর্মী। সেজন্যই তারা এ ধরনের কথা বলছে। নইলে তারা এই ধরনের কথা বলতে পারে না। এই ধরনের অপমান করতে পারে না। যারা এ ধরনের কথা বলছে তারা যৌন পেশায় যুক্ত।’

নিজের বক্তব্যে গরুর মাংস রান্নার প্রসঙ্গ তুলে অভিনেত্রী দেবলীনা দত্তকেও একহাত নিয়েছেন সৌমিত্র। ওদিকে, সৌমিত্রের এমন বক্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেছেন পশ্চিমবঙ্গের তৃণমূল কংগ্রেস। তারা বলছেন, এমন মন্তব্যের মধ্য দিয়ে শুধু চলচ্চিত্রশিল্পীদের নয় সমগ্র নারী জাতিকেই অপমান করেছেন। সূত্র: আউটলুক ইন্ডিয়া

মন্তব্য করুন