সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটার বলেছে, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের  সরকারগুলো রেকর্ড সংখ্যক ব্যবহারকারীর অ্যাকাউন্ট থেকে কনটেন্ট সরাতে টুইটারকে অনুরোধ করেছে। 

গত বছরের জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত ছয় মাসে এক লাখ ৯৬ হাজার ৮৭৮টি অ্যাকাউন্টের কনটেন্ট সরাতে ৪৩ হাজার ৩৮৭টি বৈধ আবেদন করেছে সরকারগুলো। এই সংক্রান্ত তথ্য মঙ্গলবার প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। খবর রয়টার্সের। 

টুইটার বলেছে, ২০১২ সালে কোম্পানিটি প্রতিষ্ঠার পর ছয় মাস সময়ের মধ্যেই বিভিন্ন দেশের সরকারের পক্ষ থেকে কনটেন্ট সরাতে অনুরোধের এটাই সবচেয়ে বড় রেকর্ড। এছাড়া একই সময়ে অনুরোধ করা সরকারের সংখ্যাও বেশি। 

টুইটার জানায়, রেকর্ড সংখ্যক এই অনুরোধের ৯৫ শতাংশ এসেছে মাত্র পাঁচটি দেশের পক্ষ থেকে। এর মধ্যে শীর্ষে আছে জাপান। এরপরই রাশিয়ার অবস্থান। পরের তিনটি দেশ হলো তুরস্ক, ভারত ও দক্ষিণ কোরিয়া। উল্লেখ্য যে, চীন ও উত্তর কোরিয়াসহ বেশ কয়েকটি দেশে টুইটার নিষিদ্ধ করা আছে।