অনলাইন প্ল্যাটফর্ম নির্ভর ব্যবসায়ীদের বাণিজ্যিক সংগঠন ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ই-ক্যাব) ২০২২-২৪ মেয়াদে কার্যনির্বাহী পরিষদ নির্বাচন আজ। এবারের নির্বাচনে ৯টি পদের বিপরীতে তিন প্যানেল ও স্বতন্ত্র মিলিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৩১ প্রার্থী। রাজধানীর ধানমন্ডির সাইয়ে্যদানা কমিউনিটি সেন্টারে সকাল ১০টায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়ে চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। এবারের নির্বাচনে ভোটার ৭৯৫ জন। নির্বাচন কমিশন সূত্র জানায়, সরাসরি ভোটে নির্বাচিতরা পদবণ্টন নির্বাচনে অংশ নেবেন। পদবণ্টন নির্বাচনে ২৩ জুন চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণা করা হবে।

২৪ জুন দায়িত্ব গ্রহণ করবে চতুর্থ কার্যনির্বাহী কমিটি। এবারের নির্বাচনে অগ্রগামী, চেঞ্জমেকার্স ও ঐক্য নামে তিন প্যানেলের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আছেন ৪ স্বতন্ত্র প্রার্থী। 'এক সঙ্গে প্রবৃদ্ধির পথে' স্লোগানে অগ্রগামী প্যানেলে শমী কায়সার (ধানসিড়ি ডিজিটাল) ও মোহাম্মদ আব্দুল ওয়াহেদ তমালের (কমজগৎ টেকনোলজিস) নেতৃত্বে আছেন মোহাম্মদ সাহাব উদ্দিন (ডায়াবেটিস স্টোর), নাসিমা আক্তার নিশা (রেভারি করপোরেশন), সাইদুর রহমান (ডিজিটাল হাব সলিউশনস), রুহুল কুদ্দুস ছোটন (ফোকাস ফ্রেম), শাহরিয়ার হাসান (পেপারফ্লাই প্রাইভেট), সৈয়দা আম্বারীন রেজা (ফুডপান্ডা বাংলাদেশ) এবং আসিফ আহনাফ (ব্রেক বাইট)। অন্যদিকে পরিবর্তনের ডাক দিয়ে দ্য চেইঞ্জ মেকার্স প্যানেলে ওয়াসীম আলিমের (বাংলামেডস ফার্মাসি) নেতৃত্বে আছেন- শাফকাত হায়দার (সিপরোকো কম্পিউটারস), মোজাম্মেল হক মৃধা (কিনলে ডটকম), আবু সুফিয়ান নিলাভ (নিজল ক্রিয়েটিভ), বিপল্গব ঘোষ রাহুল (ই-কুরিয়ার), মো. ইলমুল হক (সেবা.এক্স ওয়াই জেড), মো. তাসদীখ হাবীব (ক্লিনফোর্স), নুসরাত লোপা (হুর নুসরাত) এবং জীশান কিংশুক হক (আরটিএস এন্টারপ্রাইজ)। এ ছাড়াও আব্দুল আজিজের (যাচাই.কম) নেতৃত্বে ঐক্য প্যানেলে আছেন তাজুল ইসলাম (আই এক্সপ্রেস), তৌহিদা হায়দার (মেনসেন মিডিয়া), মো. আরিফুল ইসলাম ডিপেন (পরান বাজার), মোহাম্মদ সাজ্জাদুল ইসলাম (ক্রাফটস ম্যান সলুশন), সামদানী তাব্রিজ (র‌্যাপিডো ডেলিভারিস), আরিফ মোহাম্মদ আব্দুস শাকুর চৌধুরী (স্কুপ ইনফোটেক), ছোফায়েত মাহমুদ (এসএম ইন্টারন্যাশনাল) এবং সেলিম শেখ (নুরতাজ বাংলাদেশ)। স্বতন্ত্র প্রার্থীরা হলেন- মাফিয়া নাহিদ (যাচাই), ফাতিমা বেগম (আদি বিডি), মুহাম্মাদ ইসমাইল হুসাইন (বিডি এক্সকু্লসিভ) এবং আব্দুল আলিম (পাবলিক্স মেট্রো)। নির্বাচনের শেষ কয়েক দিন ছিল জমজমাট প্রচারণা। অগ্রগামী, চেঞ্জমেকার্স ও ঐক্য প্যানেলের পাশাপাশি স্বতন্ত্র প্রার্থীরাও নানা প্রতিশ্রুতি দিয়ে ইশতেহার প্রকাশ করেছেন।

ভোটারদের কাছে টানতে তিন প্যানেলই পৃথক সময়ে পাঁচ তারকা হোটেলে আয়োজন করে বিশেষ অনুষ্ঠান। ই-ক্যাবকে ঢেলে সাজাতে ছিল নানা প্রতিশ্রুতি। ই-ক্যাবের বর্তমান সভাপতি শমী কায়সার জয়ের ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, ই-কমার্স খাতকে এগিয়ে নিতে অভিজ্ঞ এবং তারুণ্যের সমন্বয়ে প্যানেল করেছেন তিনি। ই-ক্যাবকে ঢেলে সাজানোর প্রতিশ্রতি দিয়ে বিজয়ী হওয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন চেঞ্জমেকার্স প্রতিনিধি ওয়াসীম আলিম এবং ঐক্য প্রতিনিধি আব্দুল আজিজ।
হপ্রযুক্তি প্রতিদিন ডেস্ক

বিষয় : ই-ক্যাব নির্বাচন

মন্তব্য করুন