চিঠিপত্র

প্রকাশ: ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

অরক্ষিত রেলক্রসিং

রেলক্রসিংগুলোয় দেখা গেল, ট্রেন আসার কয়েক সেকেন্ড আগেও প্রতিবন্ধকের নিচ দিয়ে কসরত করে বের হওয়ার চেষ্টা করেন মোটরসাইকেলচালকরা। ফ্লাইওভারের ওপরও উল্টো পথে চলে মোটরসাইকেল, সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও অন্যান্য যানবাহন। যত্রতত্র পার্কিংয়ের কারণে এখনও সৃষ্টি হচ্ছে যানজট। তাহলে এ বিশৃঙ্খলার সমাধান কী? এ ব্যাপারে গণপরিবহন বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, কেবল গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা ও আটক কোনো সমাধান নয়। এর জন্য প্রয়োজন রাজনৈতিক সদিচ্ছা ও আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কঠোর ভূমিকা। রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে অনেক অরক্ষিত রেলক্রসিং রয়েছে। এসব রেলক্রসিংয়ে প্রায়ই দুর্ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে কর্তৃপক্ষের আশু দৃষ্টি দেওয়া প্রয়োজন।

শফিউল আল শামীম

শিক্ষার্থী, ঢাকা কলেজ

প্রবাসে শ্রমিকদের বিড়ম্বনা

রেমিট্যান্স বৃদ্ধিতে প্রবাসী বাঙালিদের অবদান অনস্বীকার্য। কিন্তু ইদানীং প্রবাসী বাঙালিদের নির্যাতনের খবর আমাদের ভাবিয়ে তুলছে। প্রবাসী বাঙালি পুরুষ শ্রমিকরা আজ কাজ পাচ্ছেন না। লাখ লাখ টাকা খরচ করে বিদেশ যাচ্ছেন অথচ সেখানে কর্তৃপক্ষ যে সুযোগ-সুবিধা দেওয়ার কথা তা দিচ্ছে না। ফলে বাঙালি শ্রমিকরা চরম অসহায়ত্ব বরণ করে দিন কাটাচ্ছেন দুঃখ কষ্টে। অনেকে জায়গা-জমি বিক্রি করে সর্বহারা হয়ে বিদেশে যাচ্ছেন অধিক টাকা আয়ের আশায়। কিন্তু সেখানে গিয়ে যদি কাজে জটিলতা সৃষ্টি হয় বা সময়মতো কাজ না পাওয়া যায় তাহলে বিদেশ যাওয়া শ্রমিকরা এ দুঃখ রাখবে কোথায়? অনেকের আবার বিদেশে বৈধ কাগজপত্র না থাকার কারণে জেলে যেতে হচ্ছে। অনেক নারী দালালদের খপ্পরে পড়ে বিদেশে টাকা উপার্জনের জন্য পাড়ি জমান। ক'দিন যেতে না যেতে এই নারী শ্রমিকরা বিভিন্ন নির্যাতনের শিকার হয়ে থাকেন। এ অবস্থায় সংশ্নিষ্ট কর্তৃপক্ষকে বিদেশে বা প্রবাসে থাকা সব বাঙালির ওপর সঠিক নজর রাখতে হবে। নির্যাতিত সব শ্রমিককে দেশে এনে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে। অসাধু দালালদের আইনের আওতায় আনতে এনে উপযুক্ত শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। নারী শ্রমিক পাঠানোর আগে ভাবতে হবে, নারীদের সঠিক দায়িত্ব ও সুযোগ-সুবিধা পাবে কি-না? বিদেশে শ্রমিক পাঠানোর আগে যথাযথ কর্তৃপক্ষকে সচেতন হতে হবে আর তা না হলে প্রবাসী বাঙালিদের দুঃখ কমবে না।

তাইফুর রহমান মুন্না, মোরেলগঞ্জ,বাগেরহাট

পরবর্তী খবর পড়ুন : প্রাণ কাঁদে এখনও...

নিজস্ব প্রতীকে শরিকদের নির্বাচন আওয়ামী লীগের কৌশল: কাদের

নিজস্ব প্রতীকে শরিকদের নির্বাচন আওয়ামী লীগের কৌশল: কাদের

আসন ভাগাভাগির পরও বিভিন্ন আসনে শরিকরা নিজেদের প্রতীকে নির্বাচনে অংশ ...

পাবনায় হামলা থেকে বাঁচতে থানায় আশ্রয় নিলেন ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী

পাবনায় হামলা থেকে বাঁচতে থানায় আশ্রয় নিলেন ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী

পাবনা-১ (সাঁথিয়া-বেড়া আংশিক) আসনে ঐক্যফ্রন্টের নেতা ও ধানের শীষ প্রতীকের ...

শ্রীলংকার কাছে সেমিতে হার যুবাদের

শ্রীলংকার কাছে সেমিতে হার যুবাদের

ইমার্জিং কাপে সেমিফাইনালে শ্রীলংকার কাছে ৪ উইকেটে হেরেছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-২৩ ...

কলরেট বাড়ানো ও কলড্রপে টাকা কাটায় হাইকোটের্র নিষেধাজ্ঞা

কলরেট বাড়ানো ও কলড্রপে টাকা কাটায় হাইকোটের্র নিষেধাজ্ঞা

পুনরায় মোবাইলের কলচার্জ বাড়ানো ও কলড্রপে টাকা কাটার ওপর নিষেধাজ্ঞা ...

ট্রাকচাপায় দুই ভাইসহ নিহত ৩

ট্রাকচাপায় দুই ভাইসহ নিহত ৩

চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গায় ট্রাকের চাপায় দুই ভাইসহ তিনজন নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে ...

শাকিব-ফারিয়ার ভিন্ন রসায়ন

শাকিব-ফারিয়ার ভিন্ন রসায়ন

মিরপুরে কোক ফ্যাক্টরির স্টুডিওতে সকাল থেকেই অপেক্ষা করছিলেন ভক্তরা। প্রিয় ...

সিলেটের উইকেট ব্যাটিং বান্ধব

সিলেটের উইকেট ব্যাটিং বান্ধব

শীতের চাদরে ঢাকা পড়েছে পুরো দেশ। রাজধানী ঢাকাতেই কেবল আসি ...

অর্থাভাবে সংস্কার হচ্ছে না পানাম নগরী

অর্থাভাবে সংস্কার হচ্ছে না পানাম নগরী

প্রাচীন বাংলার রাজধানীখ্যাত সোনারগাঁয়ের গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাসের সাক্ষী পানাম নগরী অর্থাভাবে ...