দেখা মিলল গায়িকা শুভশ্রীর

প্রকাশ: ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

আনন্দ প্রতিদিন ডেস্ক

রাজের বাগদানের পর শুভশ্রীকে শুধু সোশ্যাল মিডিয়ায় দেখা গেছে। চলচ্চিত্রের পর্দায় একেবারেই খুঁজে পাওয়া যায়নি। রাজের সঙ্গে দ্বিতীয় জীবন শুরু না করতেই চলচ্চিত্রকে বিদায় জানালেন শুভশ্রী- এ প্রশ্ন যখন অনেকের মনে দানা বেঁধেছে, ঠিক তখনই কলকাতার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রী দেখা দিলেন। তবে নায়িকা নয়; গায়িকা রূপে। সম্প্রতি শুভশ্রী সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন। সেখানেই দেখা মিলেছে গায়িকা শুভশ্রীর। শুধু গায়িকা নন; ভালো গিটারও বাজাতে জানেন তিনি। সেটাই দেখা গেছে ভিডিওতে। এর ক্যাপশানে তিনি লিখেছেন, 'আজ ঠোঁটের কোলাজ থামালো কাজ, মন তোমাকে ছুঁয়ে দিলাম।'

কণ্ঠশিল্পী হিসেবে শুভশ্রী এভাবে সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেকে তুলে ধরবেন- তা ছিল অনেকের কল্পনাতীত। তাই তো অনেকের প্রশ্ন- কলকাতার এই অভিনেত্রী এখন কি তাহলে অভিনয়ের বদলে গান-বাজনা নিয়ে ব্যস্ত? এর উত্তরে শুভশ্রী বলেন, 'ভালো লাগে এমন অনেক কিছুই আমরা করি। কিন্তু শখের বশে যা কিছুই করি না কেন, সেটাকে পেশাদারি মনোভাব নিয়ে করতে হবে- এমন কোনো কথা নেই। অভিনয়ের পাশাপাশি অনেকে গান করেছেন। অমিতাভ বচ্চন থেকে শুরু করে আমির, সালমান, শাহরুখ- অনেকেই শখের বশে প্লেব্যাক করেছেন। প্রিয়াঙ্কা চোপড়া তো একের পর এক মিউজিক ভিডিও তৈরি করে কোটি দর্শককে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন। তার পরও তারা অভিনয়কে পেশা, নেশা বলেই উল্লেখ করেন। আমিও অভিনয়ের বাইরে অন্য কিছু ভাবি না। শুধু পূজা উপলক্ষে একটি মিউজিক অ্যালবামে রাজ আর আমি কাজ করেছি। সৌরভ গাঙ্গুলি, বনি সেনগুপ্ত, মিমি ও নুসরাত জাহানও আছেন এ আয়োজনে। সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন জিৎ গাঙ্গুলি। গানের আয়োজন বললে এটুকুই। তবে শখে গান করলেও অভিনয়কে প্রাধান্য দিতে চাই।' অভিনয় বিষয়ে যখন এত মনোযোগী তাহলে বড় পর্দায় দেখা যাচ্ছে না কেন? এর উত্তরে শুভশ্রী বলেছেন, 'রাজের সঙ্গে দ্বিতীয় জীবন শুরু এবং সংসার গুছিয়ে নেওয়ার কারণে কিছুটা সময় অভিনয় থেকে দূরে থাকতে হয়েছে। এখন সবকিছু গুছিয়ে এনেছি; ভক্তরা আমাকে আর মিস করবেন না।' এ কথা বলার পাশাপাশি শুভশ্রী এও জানিয়েছেন, শিগগির পাভেল পরিচালিত 'রসগোল্লা' নামে নতুন একটি ছবিতে তাকে দেখা যাবে। উনিশ শতকে 'রসগোল্লা' তৈরি করে ভারতজুড়ে যিনি আলোড়ন তুলেছিলেন, সেই নবীন চন্দ্র দাসের জীবনী নিয়ে ছবিটি নির্মিত হচ্ছে। ছবিতে শুভশ্রীকে দেখা যাবে মালকানজান বাঈ চরিত্রে, যিনি এক সময় নবীনকে ব্যবসার জন্য টাকা দিয়ে সাহায্য করেছিলেন।