মাদ্রাসার উন্নয়নে ব্যয় হবে ৬০০০ কোটি টাকা

প্রকাশ: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

সমকাল প্রতিবেদক

দেশের দুই হাজার মাদ্রাসার অবকাঠামো উন্নয়নে পাঁচ হাজার ৯১৮ কোটি টাকার একটি প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছে সরকার। এ প্রকল্পের আওতায় উন্নয়নের জন্য সংসদ সদস্যদের পাঠানো তালিকা থেকে এক হাজার ৮০০ মাদ্রাসাকে বাছাই করা হয়েছে। এ ছাড়া শিক্ষার মান বিবেচনায় আরও ২০০ মাদ্রাসাকে প্রকল্পভুক্ত করা হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় এ প্রকল্পসহ মোট ১৮ প্রকল্প অনুমোদন দেওয়া হয়। রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে এনইসি কক্ষে এ সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সভাপতিত্ব করেন। সভাশেষে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল অনুমোদন পাওয়া প্রকল্পগুলোর বিষয়ে সাংবাদিকদের অবহিত করেন। তিনি জানান, সভায় ১৭ হাজার ৭৮৭ কোটি টাকা ব্যয়ের ১৮ প্রকল্প অনুমোদন দেওয়া হয়। এর মধ্যে সরকারি তহবিল থেকে ১৩ হাজার ৮১৩ কোটি ৪৪ লাখ টাকা, বিদেশি সহায়তা থেকে ৩ হাজার ৯৩১ কোটি টাকা এবং সংস্থার নিজস্ব তহবিল থেকে ৪২ কোটি ৬২ লাখ টাকা জোগান দেওয়া হবে।

এক প্রশ্নের উত্তরে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, জাতীয় নির্বাচনের আগে এ ধরনের প্রকল্প অনুমোদন দিলে সরকার সুবিধা পেতেই পারে। তাই বলে উন্নয়ন প্রকল্প অনুমোদন বন্ধ করে দেওয়া তো যাবে না। নির্বাচনও হবে, উন্নয়ন কাজও বন্ধ থাকবে না। তিনি আরও বলেন, প্রত্যেক সংসদ সদস্যের তালিকা অনুযায়ী ৬টি করে মাদ্রাসা উন্নয়ন করা হবে। এ ছাড়া বিশেষ বিবেচনায় আরও ২০০টি মাদ্রাসা উন্নয়ন করা হবে।

প্রকল্প প্রস্তাব অনুযায়ী বেশিরভাগ মাদ্রাসায় অবকাঠামোগত উন্নত সুবিধা এখনও গড়ে ওঠেনি। ফলে সুবিধাবঞ্চিত ওই সব মাদ্রাসায় অনুন্নত পরিবেশে শিক্ষার্থীরা শিক্ষা গ্রহণ করতে বাধ্য হচ্ছে। বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় পরিচালিত হওয়ায় পর্যাপ্ত তহবিলের অভাবে ব্যবস্থাপনা কমিটির মাধ্যমে ওই মাদ্রাসাগুলোতে প্রয়োজনীয় সংখ্যক পাকা অবকাঠামো তৈরি সম্ভব হচ্ছে না। বিভিন্ন প্রকল্পের মাধ্যমে এ পর্যন্ত ৪ হাজার ৫৫৯টি মাদ্রাসায় দুই থেকে তিনটি শ্রেণিকক্ষ সংবলিত একতলা ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। অবশিষ্ট ৪ হাজার ৭৫২টি মাদ্রাসায় এখন পর্যন্ত কোনো অবকাঠামোগত উন্নয়ন করা সম্ভব হয়নি। এ অবস্থায় প্রকল্পটি বাস্তবায়নের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের আওতায় মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তর ও শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর মাদ্রাসা উন্নয়ন প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে। প্রকল্পটি ২০২১ সালের মধ্যে বাস্তবায়িত হবে। এর পুরো অর্থই সরকারের নিজস্ব তহবিল থেকে জোগান দেওয়া হবে।

একনেক সভায় নগর প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্প নামে একটি প্রকল্পও অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

প্রকল্পের মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন শহরে মাতৃ ও শিশুস্বাস্থ্য সম্পর্কিত অপরিহার্য সেবাসহ প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করা হবে। এতে ব্যয় ধরা হয়েছে ১৭ হাজার ৭৮৭ কোটি টাকা। এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) এ প্রকল্পে ৩ হাজার ৯৩১ কোটি টাকা ঋণ দেবে।

বৈঠকে অনুমোদন পাওয়া অন্য প্রকল্পগুলো হচ্ছে- গ্রামীণ পরিবহন খাতের উন্নয়ন, পটুয়াখালীর লোহালিয়া নদীতে নির্মাণাধীন পিসি গার্ডার সেতু অসমাপ্ত নির্মাণ কাজ সমাপ্তকরণ, ফরিদপুরে আড়িয়াল খাঁ নদীতীর সংরক্ষণ ও ড্রেজিং, নোয়াখালী, ফেনী, লক্ষ্মীপুর, চট্টগ্রাম ও চাঁদপুর কৃষি উন্নয়ন, চট্টগ্রামের বিদ্যুৎ বিতরণ ব্যবস্থা উন্নয়ন ইত্যাদি।
সিলেট বিভাগের ১৯ আসনে জয়-পরাজয়ে যত ফ্যাক্টর

সিলেট বিভাগের ১৯ আসনে জয়-পরাজয়ে যত ফ্যাক্টর

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট বিভাগের ১৯ আসন নিয়ে পুলিশের ...

টি২০-তেও দারুণ চমকের অপেক্ষা

টি২০-তেও দারুণ চমকের অপেক্ষা

দূরে মাইকে কোথাও বেজে চলেছে বিজয় দিবসে কচিকাঁচার কণ্ঠে আমার ...

সরব বাবলা, নীরব সালাহ উদ্দিন

সরব বাবলা, নীরব সালাহ উদ্দিন

ঢাকা-৪ আসনে নির্বাচনী প্রচারণায় ব্যাপকভাবে এগিয়ে আছেন মহাজোটভুক্ত জাতীয় পার্টির ...

২৭ লাখ নারী ভোটার নিয়ে বিশেষ কৌশল ৩২

২৭ লাখ নারী ভোটার নিয়ে বিশেষ কৌশল ৩২

চট্টগ্রামের বন্দর-পতেঙ্গা আসনে ৫ লাখ ৮ হাজার ভোটারের প্রায় অর্ধেকই ...

রক্তিম অলরেডসে রং চটা ম্যানইউ

রক্তিম অলরেডসে রং চটা ম্যানইউ

কোন দলের রং বেশি লাল। রেড ডেভিলস নাকি অল রেডসদের। ...

আ স ম রবের নির্বাচনী অফিসে তালা, ভাঙচুরের অভিযোগ

আ স ম রবের নির্বাচনী অফিসে তালা, ভাঙচুরের অভিযোগ

লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার বড়খেরী ও চরগাজী ইউনিয়নে আ স ম ...

শিক্ষামন্ত্রীকে সমর্থন দিয়ে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন সমশের

শিক্ষামন্ত্রীকে সমর্থন দিয়ে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন সমশের

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট-৬ (গোলাপগঞ্জ-বিয়ানীবাজার) আসনে বিকল্পধারা বাংলাদেশ মনোনীত ...

ড. কামাল নীতিহীন: তোফায়েল

ড. কামাল নীতিহীন: তোফায়েল

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, ...