সমস্যা কত গভীর হবে এখনই বলা যাচ্ছে না

প্রকাশ: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সমকাল প্রতিবেদক

করোনাভাইরাসের প্রভাবে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে সমস্যা কত গভীর হবে তা এখনই বলা যাচ্ছে না বলে মন্তব্য করেছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। তিনি বলেছেন, পোশাক খাতের কাঁচামাল ও অন্যান্য উপকরণ হঠাৎ করেই চীনের বিকল্প দেশ থেকে আমদানি করে সরবরাহ স্বাভাবিক রাখা সম্ভব নয়। এর জন্য সময়ের প্রয়োজন রয়েছে।

অগ্নিনির্বাপণ ও নিরাপত্তার ওপর আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীর উদ্বোধন শেষে এ কথা বলেন বাণিজ্যমন্ত্রী। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গতকাল বৃহস্পতিবার থেকে তিন দিনের এ প্রদর্শনী শুরু হয়েছে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, হঠাৎ করে বলা মুশকিল, সমস্যা কত গভীর হয়ে দাঁড়াবে। পোশাক খাত হঠাৎ করেই কোথা থেকে সরবরাহ ব্যবস্থা খুঁজে নেবে। আশা করা যায়, বিকল্প বাজার পাওয়া যাবে। তবে বিকল্প বাজার থেকে পণ্য আনতে সময়ের দরকার। কারণ যে স্পেসিফিকেশনে কাঁচামাল আনতে হয়, তা অন্য কোথাও পেতে হলে সময় দিতে হবে। আবার বিদেশি ক্রেতাদের কাছে গ্রহণযোগ্য হতে হবে।

টিপু মুনশি বলেন. 'ব্যবসা-বাণিজ্যে করোনাভাইরাসের প্রভাব নিয়ে আমরা একটু দুশ্চিন্তার মধ্যেই আছি বটে। তারপরও আমরা সব দিকে লক্ষ্য রাখছি। চীনে ছুটি শেষ হলো। কারখানাগুলো চালু করছে। আমরা পর্যবেক্ষণ করছি। চীন রপ্তানি শুরু করলে বাংলাদেশ আনবে কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাস কয়েক মিনিটের মধ্যেই শেষ হয়ে যায়। পোশাকের আমদানি করা কাঁচামালের মাধ্যমে এর সংক্রমণের আশঙ্কা নেই।

চামড়া খাত প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ট্যানারি স্থানান্তরের পরে বড় সমস্যা ছিল সিইটিপি। এটি ঠিক হয়েছে। চামড়া খাতের সব ধরনের সমস্যা সমাধানের জন্য একটি কমিটি করা হয়েছে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বাজারে মূল্য তালিকা ঝুলিয়ে রাখতে বলা হয়েছে। কেউ যদি মূল্যের অতিরিক্ত দামে পণ্য বিক্রি করে, তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে।

প্রদর্শনীর উদ্বোধন :এবারের এক্সপোতে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, জার্মানি, ইতালি, তাইওয়ান, তুরস্কসহ ২৫টি দেশের প্রতিষ্ঠান ৭৫ স্টলে পণ্য প্রদর্শন করছে।

আয়োজক ইলেক্ট্রনিক সেফটি অ্যান্ড সিকিউরিটি অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোতাহার হোসেন খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ফায়ার সার্ভিসের পরিচালক লে. কর্নেল এস এম জুলফিকার রহমান, এফবিসিসিআইর সিনিয়র সহসভাপতি মুনতাকিম আশরাফ, বিজিএমইএর প্রথম সহসভাপতি আব্দুস সালাম, অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোহা. মাহমুদ এবং এক্সপোর আহ্বায়ক জাকির উদ্দিন আহমেদ বক্তব্য দেন।