অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ

বিচারক মোতাহারের বিরুদ্ধে তদন্ত করবে দুদক

প্রকাশ: ২২ জানুয়ারি ২০১৪

সমকাল প্রতিবেদক
অবসরপ্রাপ্ত বিচারক মোতাহার হোসেনের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার করে অবৈধ সম্পদ অর্জন ও বিদেশে অর্থ পাচারের অভিযোগ উঠেছে। তার সম্পদ অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।
গতকাল মঙ্গলবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় প্রধান কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এক ব্রিফিংয়ে দুদক কমিশনার (তদন্ত) মো. সাহাবুদ্দিন চুপ্পু এ তথ্য জানান।
জানা গেছে, বিদেশে অর্থ পাচার মামলায় সাজাপ্রাপ্ত আসামি ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার বড় ছেলে তারেক রহমানকে সম্প্রতি এক রায়ে বেকসুর খালাস দিয়েছেন বিচারপতি মোতাহার হোসেন। বসুন্ধরা গ্রুপের কর্মকর্তা হুমায়ুন কবীর সাবি্বর হত্যা মামলায় বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহানের ছেলে সা'দত হোসেনকে খালাসের রায় দিয়েছিলেন তিনি। মোটা অঙ্কের ঘুষের বিনিময়ে তিনি এই রায় দিয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মো. সাহাবুদ্দিন বলেন, দুই থেকে তিন সপ্তাহ আগে ওই বিচারকের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ কমিশনে পেশ করা হয়। অভিযোগটি যাচাই-বাছাই কমিটি দ্বারা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে ও প্রাথমিকভাবে অনুসন্ধান করে তার নামে-বেনামে অবৈধ সম্পদের তথ্য-প্রমাণ পাওয়া যায়। পরে কমিশন তার বিরুদ্ধে সম্পদ অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নেয়।
বিচারক মোতাহার হোসেন ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতে বিশেষ জজ ছিলেন। তিনি গত ৩০ ডিসেম্বর অবসরে যান। দুদকের প্রাথমিক অনুসন্ধানে তার নামে-বেনামে কোটি কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ পাওয়া গেছে।