সমর মজুমদারের একক চিত্র প্রদর্শনী শুরু

প্রকাশ: ২০ মার্চ ২০১৪      

সমকাল প্রতিবেদক

সমর মজুমদারের একক চিত্র প্রদর্শনী শুরু

বুধবার রাজধানীর ঢাকা আর্ট সেন্টারে শুরু হয়েছে সমর মজুমদারের প্রথম একক প্রদর্শনী 'সয়েল অ্যান্ড স্পিরিট'। উদ্বোধনের শেষে চিত্রকর্ম দেখছেন অতিথিরা সমকাল

সমর মজুমদার_ বইয়ের প্রচ্ছদ ও অঙ্গসজ্জার শিল্পী হিসেবে বেশ জনপ্রিয়। তবে চিত্রশিল্পী হিসেবেও তিনি অনন্য সাধারণ। গত সাত বছরের সাধনায় রঙ-তুলির আঁচড়ে জন্ম দেওয়া ৭০টি চিত্রকর্ম নিয়ে গতকাল বুধবার রাজধানীর ঢাকা আর্ট সেন্টারে শুরু হয়েছে তার প্রথম একক প্রদর্শনী। শিরোনাম 'সয়েল অ্যান্ড স্পিরিট'। সাতদিনের এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন ইমেরিটাস প্রফেসর আনিসুজ্জামান। প্রধান অতিথি ছিলেন বরেণ্য চিত্রশিল্পী সমরজিৎ রায় চৌধুরী। সভাপতিত্ব করেন করে বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প করপোরেশন (বিসিক)-এর চেয়ারম্যান শ্যামসুন্দর শিকদার। এর আগে অনুভূতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন শিল্পী সমর মজুমদার।
উদ্বোধক আনিসুজ্জামান বলেন, 'মনে কোনো কুণ্ঠাবোধ থাকলে তা ঝেড়ে ফেলে দিয়ে এগিয়ে যেতে হবে। এখানেই থামলে চলবে না। দেশবরেণ্য শিল্পীদের মধ্যে তিনিও প্রতিষ্ঠিত শিল্পী হবেন এ প্রদর্শনী তারই প্রমাণ।'
সমর মজুমদার তার প্রদর্শনীটি সাজিয়েছেন তিন সিরিজের ৭০টি চিত্রকর্ম দিয়ে। 'একাত্তর' সিরিজে রয়েছে তিনটি, 'ইমমার্স দাইসেলফ' সিরিজে ২৫টি ও টাইটেল সিরিজ 'সয়েল অ্যান্ড স্পিরিট'-এ রয়েছে ৪২টি। তেলরঙ, অ্যাক্রিলিক ও মিক্সড মিডিয়া ব্যবহার হয়েছে বেশিরভাগ চিত্রকর্মে। পাশাপাশি বিমূর্তভাবে তুলে ধরেছেন গ্রামীণ
মানুষের জীবন-যাপন, রয়েছে মুক্তিযুদ্ধকে বিষয়বস্তু করে আঁকা কয়েকটি চিত্রকর্ম।
একাত্তর সিরিজে শিল্পী তুলে ধরেন ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালরাত্রিতে পাকহানাদার বাহিনীর বর্বরতা ও দেশীয় আলবদর, রাজাকার বাহিনীর হিংস্রতার চিত্র। 'ইমমার্স দাইসেলফ' সিরিজে সবুজ নিসর্গের উজ্জ্বল উপস্থিতি। একটি চিত্রকর্মে দেখা গেল_ ডাস্টবিন ঘিরে ১০টি কাকের জটলা। তবে সবচেয়ে আকর্ষণীয় হচ্ছে 'সয়েল অ্যান্ড স্পিরিট' সিরিজটি। যেখানে শিল্পী তুলে ধরেছেন গ্রামীণ জীবন। মা ও শিশু, বাউল, গরুর গাড়ি, ধান মাড়াই, ভাত রান্না, পশুপালন ইত্যাদি। দেহের নানা বাঁক-ভঙ্গি তৈরি করে তা ললিত হয়ে ধরা দিয়েছে জ্যামিতিক রেখাচিত্রে।
প্রকাশনা সংস্থা ইউনিভার্সিটি প্রেস লিমিটেড (ইউপিএল) থেকে প্রকাশিত শওকত আলীর উপন্যাস 'প্রদোষে প্রাকৃতজন', আখতারুজ্জামান ইলিয়াসের উপন্যাস 'চিলেকোঠার সেপাই' (১৯৮৬), মঞ্জু সরকারের 'মৃত্যুবাণ' (১৯৮৬), 'অসমাপ্ত আত্মজীবনী-শেখ মুজিবুর রহমান'সহ গত তিন দশক ধরে অসংখ্য পাঠকনন্দিত বইয়ের প্রচ্ছদ শিল্পী হিসেবে শিল্পী সমর মজুমদার বহুল প্রশংসিত। আগামী প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত হুমায়ুন আজাদের 'নির্বাচিত প্রবন্ধ' (১৯৯৯) গ্রন্থের প্রচ্ছদ করেছেন তিনি। এই বইয়ের প্রচ্ছদের জন্য জাতীয় গ্রন্থ কেন্দ্র থেকে পেয়েছেন শ্রেষ্ঠ প্রচ্ছদশিল্পীর পুরস্কার।
প্রদর্শনী ২৫ মার্চ পর্যন্ত প্রতিদিন বিকেল ৩টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খোলা থাকবে।