খালেদা জিয়া চলতি সপ্তাহে দেশে ফিরবেন

প্রকাশ: ১৫ অক্টোবর ২০১৭

সমকাল প্রতিবেদক


বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া লন্ডন থেকে চলতি সপ্তাহেই দেশে ফিরবেন। গতকাল শনিবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, চলতি সপ্তাহের যে কোনোদিন খালেদা জিয়া দেশে আসতে পারেন। তার চিকিৎসা শেষ পর্যায়ে।
কুমিল্লা জেলা ও দায়রা জজ আদালত, ঢাকা মহানগর হাকিম এবং বিশেষ জজ আদালতে তিনটি মামলায় খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। এর প্রতিবাদে বিএনপির নানা কর্মসূচির মধ্যে তার দেশে ফেরার তথ্য জানালেন মহাসচিব। দলের একাধিক সিনিয়র নেতা জানান, খালেদা জিয়া আগামী মঙ্গল কিংবা বুধবার দেশে ফিরবেন। সেভাবেই প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।
চোখ ও পায়ের চিকিৎসা করাতে খালেদা জিয়া গত ১৫ জুলাই যুক্তরাজ্যে যান। পূর্ব লন্ডনের কুইসস্টোন এলাকায় ছেলে তারেক রহমানের বাসায় ওঠেন তিনি। ৮ আগস্ট লন্ডনের মুরফিল্ড হাসপাতালে তার ডান চোখে সফল অস্ত্রোপচার হয়।
জানা গেছে, চিকিৎসার পাশাপাশি তিন মাস লন্ডনে থাকার সময় খালেদা জিয়া দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সঙ্গে দলের সাংগঠনিক বিষয় নিয়ে পরামর্শ করেছেন। দলকে কীভাবে আগামী নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত করা যায়, তা নিয়েও আলোচনা করেন। দল পুনর্গঠন ও বিভিন্ন
পদে নেতৃত্বের পদায়ন পুনর্বণ্টনসহ কয়েকটি অঙ্গ সংগঠনের নতুন কমিটি ঘোষণা, তত্ত্বাবধায়কের আদলে নির্দলীয়-নিরপেক্ষ সহায়ক সরকারের প্রস্তাবনা উপস্থাপন করার ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত হয়েছে। এসব কমিটি বাস্তবায়নের পরপর মাঠে নামার পরিকল্পনা নিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন।
দলের একাধিক নেতা জানান, অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে খালেদা জিয়ার দেশে ফেরার আলোচনা ছিল। কিন্তু ১২ অক্টোবর পায়ের চিকিৎসার জন্য ডাক্তার দেখিয়েছেন তিনি। এখন দেশে ফেরার ব্যাপারে মহাসচিবসহ দলের কয়েকজন সিনিয়র নেতাকে জানিয়েছেন।
দেশে ফেরার পর খালেদা জিয়া রোহিঙ্গা ইস্যু ছাড়াও দলের সাংগঠনিক বিষয়ে দল সমর্থিত শ্রেণি-পেশার মানুষের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবেন। তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির বিষয়টি আইনগতভাবে মোকাবেলা করবেন। এসব বিষয়ে তিনি লন্ডন থেকেই দলের সিনিয়র আইনজীবীদের সঙ্গে কথা বলেছেন বলে দলের একাধিক সূত্র জানায়।