শহীদ ছাত্রনেতা সেলিমের পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা

প্রকাশ: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

বরিশাল ব্যুরো

১৯৮৪ সালে স্বৈরাচারবিরোধী গণআন্দোলনে শহীদ ছাত্রনেতা এইচ এম সেলিম ইব্রাহিমের পরিবারের সদস্যরা গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। এ সময় প্রধানমন্ত্রী শহীদ পরিবারকে জমি এবং শহীদ সেলিমের জামাতাকে চাকরি দিয়েছেন।

শহীদ সেলিম ইব্রাহিমের পরিবারের সদস্যরা গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে গত বৃহস্পতিবার সাক্ষাৎ করেন। এ সময় প্রধানমন্ত্রী তাদের পরিবারের সদস্যদের খোঁজখবর নেন। তিনি শহীদ সেলিমের স্ত্রী নাছিমা ইব্রাহিম ও মেয়ে ডরথী ইব্রাহিমকে বরিশালে ১৫ শতাংশ জমির দলিল হস্তান্তর এবং ডরথীর স্বামী মো. কামরুজ্জামানের হাতে ইসলামী ব্যাংকের কর্মকর্তা পদের নিয়োগপত্র তুলে দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বরিশালের জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমান, পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও বাউফল পৌরসভার মেয়র জিয়াউল হক জুয়েল প্রমুখ।

স্বৈরাচারী এরশাদ সরকারবিরোধী আন্দোলন চলাকালে ১৯৮৪ সালে ২৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকার গুলিস্তান-ফুলবাড়িয়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় মিছিলের ওপর ট্রাক উঠিয়ে দেয় পুলিশ বাহিনী। এতে শহীদ হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের তৎকালীন ছাত্রলীগ নেতা সেলিম ইব্রাহিম ও দেলোয়ার হোসেন। সেলিমের বাড়ি পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায়। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের শেষবর্ষের ছাত্র ছিলেন। তার একমাত্র মেয়ে ডরথী ইব্রাহিম বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত।