ঈশা খাঁ বিশ্ববিদ্যালয়ের সপ্তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

প্রকাশ: ১৫ মার্চ ২০১৯      

কিশোরগঞ্জ অফিস

কিশোরগঞ্জে ঈশা খাঁ ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সপ্তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপিত হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে উপাচার্য অধ্যাপক মো. সুলতান উদ্দিন ভূঞা, ট্রাস্টি বোর্ডের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ডা. আ.ন.ম. নৌশাদ খান ও ট্রেজারার অনিল চন্দ্র সাহা কেক কেটে, পায়রা ও বেলুন উড়িয়ে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর উদ্বোধন করেন। পরে বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণ থেকে বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়।

বক্তারা বলেন, কিশোরগঞ্জ হাওরবেষ্টিত জেলা। হাওরসহ আশপাশের বিভিন্ন জেলা-উপজেলার শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখে ঈশা খাঁ বিশ্ববিদ্যালয় তার কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে। দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের শিক্ষা কার্যক্রম যেন ব্যাহত না হয় সে জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে বৃত্তির ব্যবস্থা রয়েছে।

উপাচার্য অধ্যাপক সুলতান উদ্দিন ভূঞা বলেন, ঈশা খাঁ বিশ্ববিদ্যালয় গৌরবের সঙ্গে সপ্তম বর্ষে পদার্পণ করেছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার মান বজায় রাখতে

শিক্ষকরা সব সময় সচেষ্ট। অচিরেই বিশ্ববিদ্যালয় তার নিজস্ব স্থায়ী ক্যাম্পাসে স্থানান্তরিত হবে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন অনুষদের ডিন অধ্যাপক রফিকুল আলম, কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক আরজ আলী, ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার চৌধুরী খায়রুল হাসান, প্রক্টর রিয়াদ আহমেদ তুষার, লাইব্রেরি সায়েন্স বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক নূরুল আমিন, আইন বিভাগের চেয়ারম্যান মহসিন খান, ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের চেয়ারম্যান জুয়েল চৌধুরী, ইংরেজি বিভাগের চেয়ারম্যান বদরুল হুদা সোহেল প্রমুখ।

দু'দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের শেষ দিন আজ শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে আতশবাজি ও ফানুস ওড়ানো হবে। পরে সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ এক সাংস্কৃৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।