নাসরীন জেবিনের তিনটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

প্রকাশ: ১৫ মার্চ ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

পেশায় শিক্ষক। তবে তার কর্মময় জীবনে ওতপ্রোতভাবে মিশে আছে সাহিত্য। কখনও কবিতার ছন্দময়তায়, কখনও উপন্যাসের ব্যাপ্তিতে তিনি খুঁজে ফিরছেন জীবনের মানে। প্রবন্ধ সাহিত্যেও তিনি রেখে চলেছেন প্রতিভার স্বাক্ষর। গুণী এ লেখকের নাম নাসরীন জেবিন। সদ্য সমাপ্ত অমর একুশে গ্রন্থমেলায় প্রকাশিত হয়েছে তার তিনটি বই। এর মধ্যে কবিতার বই 'প্রজাপতি সুখ', উপন্যাস 'অব্যক্ত' ও প্রবন্ধগ্রন্থ 'মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়ের জীবন ও উপন্যাস'। বইগুলোর প্রকাশক অনন্যা। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে জমকালো এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বইগুলোর মোড়ক উন্মোচন

করা হয়।

বাংলা একাডেমির কবি শামসুর রাহমান সেমিনার কক্ষে গতকাল বিকেলে মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামান। কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনের সভাপতিত্বে বই নিয়ে আলোচনা করেন একাডেমির মহাপরিচালক কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী ও আবৃত্তি শিল্পী রূপা চক্রবর্তী। স্বাগত বক্তব্য দেন প্রকাশনা সংস্থা অনন্যার প্রধান নির্বাহী এবং জ্ঞান ও সৃজনশীল প্রকাশক সমিতির নির্বাহী পরিচালক মনিরুল হক।

জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামান বলেন, নাসরীন জেবিনের লেখা পড়লে বোঝা যায় যথাসাধ্য যত্নসহকারে লিখেছেন।

হাবীবুল্লাহ সিরাজী বলেন, লেখকের উপন্যাসে সংঘাত আছে, স্বপ্ন আছে। তাকে আমরা আরও পাঠের মাধ্যমেই বুঝে নিতে পারি।

সেলিনা হোসেন বলেন, আজকের প্রকাশনা উৎসবটি একটু ভিন্ন ধারার। কারণ, তিনটি বই তিন ধরনের শিল্প সৃজন। নাসরীন জেবিনের লেখায় সমাজমনস্ক বিশ্নেষণ আছে।

ড. নাসরীন জেবিন বলেন, আমার সৃষ্টির যে অভিনন্দন পেয়েছি তাতে আমি অভিভূত।

অধ্যাপক ড. নাসরীন জেবিনের এ যাবৎ প্রকাশিত গ্রন্থগুলোর মধ্যে 'ফিরে এসো সুতপা' ও 'মোহিনীর জন্য' অন্যতম। একই সঙ্গে 'নারী তুমি জয়িতা', 'বাংলা ছোটগল্প', 'রবীন্দ্র সাহিত্যের বিচিত্রপত্র' উল্লেখযোগ্য। স্বীকৃতিস্বরূপ এরই মধ্যে দু'বার 'বিশাল বাংলা সাহিত্য পুরস্কার' পেয়েছেন।