বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করেছেন, বাংলাদেশ এখন নতজানু রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। দেশে একটা সংকটকাল চলছে। আমরা জাতি হিসেবে সব অর্জন হারিয়ে ফেলেছি। আওয়ামী লীগ গণতন্ত্রের স্তম্ভগুলোকে ভেঙে দিয়েছে।

গতকাল রোববার রাজধানীর নয়াপল্টনে সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৩৮তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ন্যাশনালিস্ট রিসার্চ সেন্টার (এনআরসি) আয়োজিত আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে এ কথা বলেন মির্জা ফখরুল। প্রদর্শনীতে জিয়াউর রহমানের ৬০টি আলোকচিত্র স্থান পায়।

মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগের নেতারা বড় বড় কথা বলেন। এ দেশে যত অপকর্ম সব তাদের দ্বারা হয়েছে। দুর্ভিক্ষ হয়েছে, চরম দুর্নীতি হয়েছে এবং গণতন্ত্রকে হত্যা করা হয়েছে। সংবিধানকে কেটে-ছিঁড়েছে, জরুরি অবস্থা জারি করেছে আওয়ামী লীগ। তিনি বলেন, যে চেতনা সামনে রেখে আমরা স্বাধীনতা অর্জন করেছিলাম, তাকে হারিয়ে ফেলেছি। গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে, মূল্যবোধগুলোকেও ধ্বংস করে ফেলা হয়েছে। স্বাধীন বিচার বিভাগকেও ধ্বংস করা হয়েছে। এখন আর বাংলাদেশকে স্বাধীন বলতে পারি না।

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতার স্মৃতিচারণ করে তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান ছিলেন সততার প্রতীক। এখন তার সততা নিয়েও আওয়ামী লীগ কটাক্ষ করে। অথচ বিদেশে তাদের সম্পদের পাহাড় জমা হচ্ছে। অনেকের ৪-৫টা করে বাড়িঘর হচ্ছে ঢাকা শহরে। তিনি

বলেন, জিয়াউর রহমানের উত্তরসূরি বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া এখন কারাগারে। যারা জিয়াউর রহমানকে ভালোবাসেন, তার রাজনীতিকে, জাতীয়তাবাদী দর্শনে বিশ্বাস করেন তাদেরই আন্দোলনের মাধ্যমে তাকে কারাগার থেকে মুক্ত করতে হবে।

সংগঠনের সভাপতি বাবুল তালুকদারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় দলের ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, নির্বাহী কমিটির সদস্য টিএস আইয়ুব, এনআরসির কর্মকর্তা আল আমিন বক্তব্য দেন।

মন্তব্য করুন