রাজশাহীর সঙ্গে সারাদেশের রেল যোগাযোগ চালু

প্রকাশ: ১২ জুলাই ২০১৯      

রাজশাহী ব্যুরো

তেলবাহী ট্রেনের লাইনচ্যুত বগি সরিয়ে নেওয়ার পর সারাদেশের সঙ্গে রাজশাহীর রেল যোগাযোগ স্বাভাবিক হয়েছে। প্রায় ২৯ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১১টার দিকে রাজশাহীর পথে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়। বুধবার সন্ধ্যায় চারঘাট উপজেলার হলিদাগাছিতে তেলবাহী ট্রেনের আটটি বগি লাইনচ্যুত হলে সারাদেশের সঙ্গে রাজশাহীর রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

পশ্চিমাঞ্চল রেলের মহাব্যবস্থাপক (জিএম) খোন্দকার শহিদুল ইসলাম জানান, তেলবাহী ট্রেনের লাইনচ্যুত সব বগি বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ১০টার দিকে সরিয়ে নেওয়া সম্ভব হয়। এরপর ফের রাজশাহীর পথে ট্রেন চলাচল

শুরু হয়।

রাজশাহী রেলস্টেশনের সুপারিনটেনডেন্ট আব্দুল করিম জানান, তেলবাহী ট্রেনটি খুলনা থেকে ছেড়ে ঈশ্বরদী হয়ে কাটাখালী দিয়ে আমনুরা যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে সেটি সারদা স্টেশন থেকে হলিদাগাছি এলাকায় এসে লাইনচ্যুত হয়। এতে ট্রেনের আটটি বগি লাইনচ্যুত হয়। বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে খবর পেয়ে তেলবাহী ট্রেনটি উদ্ধার করতে ঈশ্বরদী থেকে উদ্ধারকারী ট্রেন রওনা হয়। রাতেই শুরু করে উদ্ধার অভিযান। তবে টানা বৃষ্টি আর নরম কাদার কারণে উদ্ধার অভিযান ব্যাহত হতে থাকে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আটটি বগির মধ্যে ছয়টি উদ্ধার করা সম্ভব হয়।

পশ্চিমাঞ্চল

রেলের জিএম শহিদুল ইসলাম জানান, রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যাওয়ার কারণে সাতটি ট্রেনের যাত্রা বাতিল করে টিকিটের দাম ফেরত দেওয়া হয়েছে। ট্রেনের বগি লাইনচ্যুত হওয়ার পেছনে দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে পশ্চিমাঞ্চল রেলের সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুর রশিদকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এ ঘটনায় পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

এদিকে হঠাৎ রেল যোগাযোগ বন্ধ হওয়ার কারণে যাত্রীরা দুর্ভোগে পড়েন। জরুরি কাজে কেউ কেউ বাসে, কেউ বিকল্প পথে রওনা দেন গন্তব্যে।