এক সপ্তাহ ধরে সাগরে ভাসছিলেন তিনি

প্রকাশ: ১২ জুলাই ২০১৯      

ট্রলারডুবির পর প্রায় এক সপ্তাহ সাগরে ভাসতে থাকা ভারতের এক জেলেকে উদ্ধার করেছেন বাংলাদেশি পতাকাবাহী একটি জাহাজের নাবিকরা। বঙ্গোপসাগরের ভারত সীমানায় ট্রলারডুবির পর ওই জেলে ভাসতে ভাসতে সাগরের বাংলাদেশ সীমানায় ঢুকে পড়েন। বাংলাদেশের বেসরকারি শিল্পপ্রতিষ্ঠান কেএসআরএম গ্রুপের মালিকানাধীন জাহাজ এমভি জাওয়াদের নাবিকরা গত বুধবার তাকে উদ্ধার করেন। ওই ব্যক্তির নাম রবীন্দ্রনাথ দাস কানু। তার বাড়ি ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা জেলায়।

কেএসআরএম গ্রুপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মেহেরুল করিম জানান, জাহাজ এমভি জাওয়াদ আমদানি পণ্য নিয়ে চট্টগ্রাম বন্দরের দিকে আসছিল। কুতুবদিয়া এলাকায় সাগরে একটি কাঠ ধরে একজনকে ভাসতে দেখে জাহাজের নাবিকরা বিষয়টি মাস্টারকে জানান। মাস্টার তখন কোস্টগার্ড, নৌবাহিনী এবং চট্টগ্রাম বন্দরের নিয়ন্ত্রণ কক্ষে বার্তা পাঠান। পাশাপাশি ভাসমান লোকটিকে উদ্ধারে লাইফ জ্যাকেট ও লাইফ বয়া সাগরে ছুড়ে দেন নাবিকরা। তিনি জানান,

ভাসমান লোকটি জ্যাকেট ধরতে পারলেও বয়াটি ধরতে ব্যর্থ হন। কিন্তু উদ্ধারের আগেই তিনি অদৃশ্য হয়ে যান। প্রায় ৪০ মিনিট ধরে জাহাজ সাগরে অবস্থানের পর আবারও তার দেখা মেলে। এরপর আবারও লাইফ বয়া ছুড়ে মারা হয়। তখন তিনি সেটি ধরতে সক্ষম হন। এরপর নাবিকরা তাকে জাহাজে তুলে নেন।