বিস্ময়কর কেক

প্রকাশ: ১৯ জুলাই ২০১৯

সমকাল ডেস্ক

ইউরোপে, বিশেষ করে যুক্তরাজ্যে ওয়েডিং কেকের মর্যাদাই আলাদা। বিয়ের অনুষ্ঠানে ওয়েডিং ব্রেকফাস্ট বলে একটা পর্ব রয়েছে। সেখানে নতুন জুটি ও অতিথিদের এ কেক দিয়ে আপ্যায়ন করা হয়। এ কেকের স্বাদ নেওয়ার মধ্য দিয়ে জুটির সুখী দাম্পত্য জীবন কামনা করা হয়। অতিথিদের জন্যও সুন্দর ও সুখী জীবন আশা করা হয়। বিয়ের এ কেকের দিকে স্বাভাবিকভাবেই থাকে বাড়তি মনোযোগ। পপ কালচারের যুগে তা আরও বেড়েছে। সবাই চায় কেকের মধ্যে সৌন্দর্যের অপূর্ব ছোঁয়া। যেন তা সবার মন কেড়ে নেয়। অভিজাত পরিবারগুলো এ জন্য ব্যয় করতেও কার্পণ্য করে না।

তাদের চাই সেরা ও দৃষ্টিকাড়া কেক। সম্প্রতি এ ধরনের দৃষ্টিনন্দন ও বিশাল আকারের কেক তৈরি করে সেলিব্রেটি হয়ে গেছেন রাশিয়ার নাগরিক রেনাত আগজামভ। তিনি এক

সময় মুষ্টিযোদ্ধা ছিলেন। রাশিয়ার জাতীয় চ্যাম্পিয়নও ছিলেন। এখন বানান সেলিব্রেটি পেস্ট্রি সেফ। ইনস্টাগ্রামে তার ২০ লাখ ফলোয়ার রয়েছেন। তারা আগজামভের কেকের কারুকাজ, বিশলতা আর অভিনবত্ব দেখে বিস্ময় প্রকাশ করছেন। আগজামভও তার ইনস্টাগ্রাম সাইটে প্রায় প্রতিদিনই নতুন নতুন ডিজাইনের কেকের ছবি আপলোড করেন। রাশিয়া ও ইউরোপের অভিজাত পরিবারগুলো তার কেকের ক্রেতা। বিলাসবহুল ও ব্যয়বহুল বিয়ে মানেই আগজামভের ডাক পড়া।

সম্প্রতি আগজামভ কাজাখস্তানের একটি অভিজাত বিয়ের জন্য ওয়েডিং কেক তৈরি করেছেন। এ কেকের জন্য তিনি ইউরোপ ও রাশিয়ার গণম্যাধ্যমে শিরোনাম হয়ে ওঠেন। কেকটা ছিল ১৩ ফুট উচু আর ওজন দেড় হাজার কেজি। কেকটার জন্য গুনতে হয়েছে এক লাখ ৮০ হাজার ডলার! শিশুদের রূপকথায় পরীদের রাজ্যে যে রাজপ্রাসাদের দেখা মেলে, কেকটা দেখতে অনেকটা তেমনি। কেকটিতেও অনেক টাওয়ার, যেন সোনায় মোড়ানো আর মণিমুক্তায় খচিত। আছে একের পর এক বেলকনি আর তাতে লতাপাতা ও ফুলের কারুকাজ। কামরার ভেতর জ্বলছে নানা রঙের বাতি। সেখানে এক দম্পতি ঘুরে ঘুরে নাচছেন। সূত্র : অডিটি সেন্ট্রাল।