রাজধানীর রমনা এলাকা থেকে এক নারী চিকিৎসকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। গতকাল সোমবার দুপুরে রমনার নিউ ইস্কাটন রোডের বাসা থেকে ডা. সুপ্রিয়া কর্মকারের (৩৫) লাশ উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায় পুলিশ। বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে কর্মরত সুপ্রিয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) এফসিপিএস কোর্স করছিলেন। তিনি গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

স্বজনদের উদ্ৃব্দত করে রমনা থানার এসআই নারায়ণ সরকার জানান, সুপ্রিয়া রোববার রাত ১১টার দিকে খাবার খেয়ে ঘুমিয়ে পড়েন। গতকাল সকাল ১১টার দিকে তার ছোট ভাই সুতনু কর্মকার তাকে ডাকতে যান। ওই সময় দরজা ধাক্কা দিয়ে দেখেন ফ্যানের সঙ্গে ওড়না প্যাঁচিয়ে ঝুলে আছেন তার বোন। সুপ্রিয়ার মৃত্যুর ঘটনায় তদন্ত শুরু হয়েছে।

স্বজনরা জানান, তাদের গ্রামের বাড়ি ভোলার লালমোহন উপজেলার কর্তাবাজার এলাকায়। সুপ্রিয়ার বাবা সুধীর কর্মকার ও মা পান্না কর্মকার চট্টগ্রামে থাকেন। ভাই সুতনুকে নিয়ে তিনি নিউ ইস্কাটনের বাসায় থাকতেন।

মন্তব্য করুন