নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় পৃথক স্থান থেকে এক যুবক ও এক তরুণীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল সোমবার সকালে ফতুল্লার ভূঁইগড় সরদারবাড়ি থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় রীনা আক্তার (২২) ও কায়েমপুর ফকির নিটওয়্যারের সামনের খাল থেকে অজ্ঞাত যুবকের (৩০) লাশ উদ্ধার করা হয়। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি রকিবুজ্জামান বলেন, ধারণা করা হচ্ছে, পারিবারিক কলহের জেরে ফ্যানের সঙ্গে ওড়না পেঁচিয়ে রীনা গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। পরিবারের লোকজন জানিয়েছে, মানসিকভাবে তিনি কিছুটা অসুস্থ ছিলেন।

৬ মাস আগে স্বামীর সঙ্গে বিচ্ছেদ হওয়ার পর থেকে নিয়মিত ঘুমের ওষুধ খেতেন। রীনা শেরপুর জেলার নকলা থানার মোমিনাকান্দা গ্রামের ফারুক মিয়ার মেয়ে। বাবা-মায়ের সঙ্গে ভূঁইগড় সরদারবাড়িতে ভাড়া থাকতেন। তার ৫ বছর বয়সী একটি মেয়ে আছে।

ওসি আরও জানান, অজ্ঞাত ওই যুবক ফকির নিটওয়্যার লিমিটেড ৩ নম্বর গেট সংলগ্ন খালের পানিতে পড়ে মারা যান বলে ধারণা করা হচ্ছে। ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা তার লাশ উদ্ধার করেছেন।

মন্তব্য করুন