'হটলাইন কমান্ডো' নিয়ে আসছেন সোহেল তাজ

প্রকাশ: ১৯ জুলাই ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

'হটলাইন কমান্ডো' নিয়ে আসছেন সোহেল তাজ

বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলনে সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী সোহেল তাজ - সমকাল

'হটলাইন কমান্ডো' নামের একটি টেলিভিশন শো নিয়ে আসছেন সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ও সাবেক সংসদ সদস্য তানজিম আহমদ সোহেল তাজ। 'ফিটনেস মিডিয়া'র ব্যানারে লাইফস্টাইলবিষয়ক এ রিয়্যালিটি শোর মাধ্যমে সামাজিক বিভিন্ন সমস্যা তুলে ধরে দেশের সর্বস্তরের মানুষের জীবনে ইতিবাচক পরিবর্তন আনতে সচেষ্ট থাকবেন তিনি। একই সঙ্গে সুস্বাস্থ্যের ব্যাপারে মানুষকে সচেতন করার প্রচেষ্টাও চালাবেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের সুরমা হলে এক সংবাদ সম্মেলনে সোহেল তাজ আগামী সেপ্টেম্বর থেকে এই শো শুরু করার ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, ত্রিশ লাখ শহীদের রক্তের বিনিময়ে অর্জিত বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার জন্য দরকার সোনার মানুষ। আর দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতি বাস্তবায়নে সোনার মানুষ গড়তেই তার এ উদ্যোগ।

সংবাদ সম্মেলনে একটি ডেমোর (ভিডিও চিত্র) মাধ্যমে মানুষের জীবনযাপন, খাদ্যাভ্যাস ও সুস্থতার পাশাপাশি সামাজিক বিভিন্ন সমস্যা ও অসঙ্গতি তুলে ধরেন দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী ও জাতীয় চার নেতার অন্যতম তাজউদ্দীন আহমদের ছেলে সোহেল তাজ। তিনি বলেন, মানুষের শারীরিক সুস্থতার পাশাপাশি সমাজের সুস্থতাও দরকার। গণমাধ্যমে এখন শিশু ধর্ষণ ও গণধর্ষণের খবর পাওয়া যাচ্ছে। ইভ টিজিং, মাদক ছড়িয়ে পড়েছে- এগুলোও সমাজের ব্যাধি। সমাজের সব ব্যাধিকে আমাদের লাল কার্ড দেখাতে হবে।

সোহেল তাজ বলেন, তার 'হটলাইন কমান্ডো' অনুষ্ঠান ভবিষ্যতে কোনো রাজনৈতিক সংগঠন হবে না। বরং রাজনীতির বাইরে থেকেও মানুষের জন্য কিছু করার ইচ্ছা থেকেই এই পদক্ষেপ নিয়েছেন তিনি।

সোহেল তাজ জানান, 'হটলাইন কমান্ডো' দল নিয়ে দেশের বিভিন্ন স্থানে গিয়ে নানা শ্রেণি-পেশার মানুষের দরজায় কড়া নাড়বেন তিনি। জানতে চাইবেন তাদের জীবনযাপনের অভ্যাস ও ধরন, স্বাস্থ্য, খাদ্যাভ্যাস, বাসস্থান, কর্মপরিবেশসহ নানা সমস্যার কথা। এই দলের বিশেষজ্ঞ সদস্যরা মানুষকে এসব বিষয়ে সচেতন করবেন। হাতে-কলমে সহায়তা করবেন জীবনযাপনের সহজ ও কার্যকর পথ বেছে নিতে।

তার টিভি শোর মাধ্যমে দুর্নীতি প্রতিরোধে কাজ করবেন কি-না- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, শহীদ তাজউদ্দীন আহমদের সন্তান ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক হিসেবে তিনি অবশ্যই চান বাংলাদেশ দুর্নীতিমুক্ত হবে। ব্যক্তিগতভাবে সে লক্ষ্যে কাজও করবেন তিনি। তবে তার টেলিভিশন শো হবে সামাজিক বিষয়বস্তু এবং সোনার মানুষ তৈরি করা নিয়ে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, 'হটলাইন কমান্ডো' আগামী সেপ্টেম্বর থেকে বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল আরটিভিতে দেখানো হবে। পাক্ষিক এই রিয়্যালিটি শো মাসে দু'দিন করে এবং মঙ্গলবার রাত ৮টায় প্রচারিত হবে। ১২ পর্বের এ অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করবেন সোহেল তাজ নিজেই।

এ সময় অনুষ্ঠানের প্রযোজক ফিটনেস মিডিয়ার সঙ্গে স্পন্সর প্রতিষ্ঠান র‌্যাংগস গ্রুপের মিটসুবিসি মোটরস ও সুজুকি মোটর বাইকস এবং ব্রডকাস্ট পার্টনার আরটিভি ও নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান কারুজ কমিউনিকেশন্সের মধ্যে চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। পরে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন র‌্যাংকন গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রৌম্য রউফ চৌধুরী, মিটসুবিসি মোটরস ও সুজুকি মোটর বাইকসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাওন হাকিম, আরটিভির সিইও সৈয়দ আশিক রহমান, অনুষ্ঠানের নির্দেশক কাওসার মাহমুদ, গৌতম কৌরি, সমন্বয়কারী আশফাক আহমেদ প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলনে তার রাজনৈতিক অবস্থান নিয়েও সাংবাদিকদের নানা প্রশ্নের জবাব দেন সোহেল তাজ। সাবেক এই স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, এই মুহূর্তে সক্রিয়ভাবে রাজনীতি করার সুযোগ নেই তার সামনে। কেননা 'হটলাইন কমান্ডো' তার সব সময় নিয়ে নেবে। এই প্রোগ্রামের জন্য তিনি তার মেয়েদের কাছ থেকেও ছুটি নিয়ে এসেছেন। তিনি বলেন, একটা সমাজ সঠিকভাবে গড়ে না উঠলে এবং প্রস্তুত না থাকলে সেখানে কি রাজনীতি করা যাবে? কাকে নিয়ে রাজনীতি করা যাবে? সমাজ ও মানুষ গড়তে পারলেই সব কিছুর সমাধান চলে আসে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং আওয়ামী লীগ তাকে আবারও কোনো রাজনৈতিক দায়িত্ব দিলে তিনি গ্রহণ করবেন কি?- এমন প্রশ্নের জবাবে সোহেল তাজ বলেন, তিনি ও তার পরিবার আওয়ামী লীগ ও দেশের দুঃসময়ে সবসময় পাশে ছিল, ভবিষ্যতেও থাকবে। আজকের সুদিনে দল ও সরকারের সঙ্গে থাকবেন কি-না- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সুদিনে অন্যভাবে সহায়তা করছেন তিনি।

সম্প্রতি দেশের সর্বস্তরের মানুষের জীবনে ইতিবাচক পরিবর্তন আনতে 'ভিন্নধর্মী এক পরিকল্পনা' নিয়ে আসার কথা বলে আসছিলেন সোহেল তাজ। তার এ কর্মপরিকল্পনাকে 'নতুন কিছু' আখ্যা দিয়ে গত ৩ এপ্রিল নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে একটি টিজারও দিয়েছিলেন তিনি। ফলে এ নিয়ে বিভিন্ন মহলে কৌতূহল ছড়িয়ে পড়েছিল- কী করতে যাচ্ছেন তিনি? গতকালের সংবাদ সম্মেলনে সোহেল তাজের 'হটলাইন কমান্ডো' নিয়ে আসার ঘোষণার মধ্য দিয়ে সেই কৌতূহলের অবসান ঘটল।