চিত্রনায়িকা পরীমণির ঘটনায় দায়ের মামলায় বহুল আলোচিত তুহিন সিদ্দিকী অমির মানব পাচারের বিরুদ্ধে তদন্ত করছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ-সিআইডি। গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর দক্ষিণখান থানায় তার বিরুদ্ধে দায়ের মানব পাচার মামলাটির তদন্ত এরই মধ্যে শুরু হয়েছে। ওই মামলায় অমি ছাড়াও এজাহারভুক্ত আরও চার আসামি রয়েছে। এদিকে পাসপোর্ট উদ্ধারের ঘটনায় একই থানায় দায়ের মামলায় অমিকে শিগগিরই শ্যোন অ্যারেস্ট করার আবেদন করবে পুলিশ। তদন্ত-সংশ্নিষ্ট সূত্রে এসব তথ্য মিলেছে।

তুহিন সিদ্দিকী অমি বর্তমানে মাদকের মামলায় ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) রিমান্ডে রয়েছেন। ওই মামলা ছাড়াও তিনি ঢাকা বোট ক্লাবে পরীমণিকে ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টা অভিযোগে সাভার মডেল থানায় দায়ের মামলার আসামি। একই মামলার আসামি জাতীয় পার্টি নেতা নাসির উদ্দিন মাহমুদও মাদকের মামলায় ডিবির রিমান্ডে রয়েছেন।

পুলিশ জানায়, অমির বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার দক্ষিণখান থানায় মামলা করেন আব্দুল কাদির নামে এক ব্যক্তি। ওই মামলায় জসিম মাস্টার, সালাউদ্দিন, মোস্তফা ও পারভেজ নামে আরও চারজনকে আসামি করা হয়। মামলার এজাহারে বলা হয়, গত ৫ মার্চ আসামিরা তার দুই আত্মীয়কে কাজের জন্য দুবাই পাঠানোর কথা বললেও সেখানে তাদের অবৈধভাবে পাচার করা হয়। এখন তারা সেখানে পুলিশের ভয়ে বাসার বাইরে যেতে পারছেন না। এ ছাড়া অমিসহ অপর আসামিরা আরও দু'জনকে ওয়েলডিং ভিসায় দুবাই পাঠানোর কথা বলে টাকা ও পাসপোর্ট নিয়ে ছয় মাস ধরে আটকে রেখেছে।

বাদী আব্দুল কাদির বলেন, অমি ও তার লোকজন ওই চারজন ছাড়াও অনেক নিরীহ লোককে দুবাই, মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুরসহ বিভিন্ন দেশে কাজের ভিসায় পাঠানোর কথা বলে কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন। ঢাকা মহানগর পুলিশের উত্তরা বিভাগের উপকমিশনার মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম গতকাল শুক্রবার সমকালকে বলেন, তুহিন সিদ্দিকী অমিসহ অপর আসামিদের বিরুদ্ধে মানব পাচার আইনে দায়ের মামলাটি সিআইডি তদন্ত করবে। তবে তার অফিসে তল্লাশি চালিয়ে উদ্ধার করা পাসপোর্টের ঘটনায় দায়ের মামলাটি দক্ষিণখান থানা পুলিশ তদন্ত করছে। মাদক আইনের মামলায় ডিবির রিমান্ড শেষ হলেই অমিকে ওই মামলায় শ্যোন অ্যারেস্ট দেখাতে আবেদন করা হবে।

এদিকে ডিবির একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তা সমকালকে বলেন, তারা মূলত উদ্ধার করা মদ ও ইয়াবার বিষয়ে নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও অমিকে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন। তবে বোট ক্লাবে পরীমণির ঘটনার পর ওই আসামিরা গ্রেপ্তার হওয়ায় সেখানকার বিষয়টিও প্রাসঙ্গিকভাবে আসছে। আসামিরা নানা বিষয়ে তথ্য দিয়েছেন। এসব তথ্য যাচাই করা হচ্ছে।

বিষয় : পরীমণি ইস্যু অমি র মানব পাচার

মন্তব্য করুন