নেত্রকোনায় অতিরিক্ত বাস ভাড়া আদায়

প্রকাশ: ১৪ জুন ২০১৮      

নেত্রকোনা প্রতিনিধি

ঈদুল ফিতর সামনে রেখে জেলা সদরসহ বিভিন্ন সড়কে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত বাসভাড়া আদায় করা হচ্ছে। গেট সার্ভিস বলে বাসযাত্রীদের সঙ্গে চলছে প্রতারণা। চরম ভোগান্তির মধ্য দিয়ে যাত্রীদের চলাচল করতে হচ্ছে। যাত্রীদের দুর্ভোগ দেখার কেউ নেই।

ঢাকা-নেত্রকোনা সড়কে শাহজালাল এন্টারপ্রাইজ, একরাম পরিবহন, নেত্র পরিবহন, গ্রিন লাইন পরিবহনসহ বেশ কয়েকটি সার্ভিসের বাস চলাচল করে। শাহজালাল এক্সপ্রেস ও একরামের ভাড়া ২৫০ টাকা। এ ছাড়া অন্য লোকাল বাস সার্ভিসে এমনিতে দেড়শ' থেকে ২০০ টাকা নেওয়া হয়। ময়মনসিংহ- নেত্রকোনা সড়কে মহুয়া গেটলক সার্ভিসে ৫৫ টাকা করে ভাড়া নেওয়া হয়। যদিও মহুয়া বাস গেটলক সার্ভিস বলে দীর্ঘদিন ধরে যাত্রীদের সঙ্গে প্রতারণা করা হচ্ছে। প্রকৃতপক্ষে ওই বাস চলে লোকাল হয়ে। বুধবার থেকে নেত্রকোনাগামী সব বাসে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হচ্ছে। ঢাকা থেকে নেত্রকোনা পর্যন্ত ২৫০ টাকার স্থলে ৩৫০ টাকা থেকে ৪০০ টাকা এবং ময়মনসিংহ থেকে নেত্রকোনা পর্যন্ত ৫৫ টাকার  স্থলে ৭০ থেকে ৮০ টাকা করে আদায় করা হয়।

নেত্রকোনা বাস পরিবহন মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আরিফ খান বলেন, বাসে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের বিষয়টি আমার জানা নেই। এ ব্যাপারে আমাদের কাছে কেউ অভিযোগ করেনি।