ব্যাংক কর্মকর্তা তরুণীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে মাসুদ রানা (৩৭) নামে এক প্রতারককে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। র‌্যাব-৮ মাদারীপুর ক্যাম্পের একটি দল গত মঙ্গলবার বিকেলে গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানী উপজেলার সাহেবেরচর গ্রামে অভিযান চালিয়ে ওই যুবকে গ্রেফতার করে। আটক মাসুদ রানা সাহেবেরচর গ্রামের আবু তালেব মুন্সির ছেলে।

র‌্যাব-৮ মাদারীপুর ক্যাম্পের অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রইছ উদ্দিন জানান, চার-পাঁচ বছর আগে ফেসবুকের মাধ্যমে ব্যাংক কর্মকর্তা ওই তরুণীর সঙ্গে অভিযুক্ত মাসুদ রানার পরিচয় হয়। তখন মাসুদ রানা নিজেকে ঢাকা কলেজের ছাত্র পরিচয় দিয়ে তার সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। একপর্যায়ে তরুণী জানতে পারেন, মাসুদ রানা প্রকৃতপক্ষে দুই কন্যা ও এক পুত্রসন্তানের জনক। এ নিয়ে তাদের সম্পর্কে চিড় ধরে। মাসুদ রানা তাদের ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের বিভিন্ন আপত্তিকর ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয়। এ নিয়ে ওই তরুণীর পরিবার গত বছরের মে মাসে ঢাকার বাড্ডা থানায় সাধারণ ডায়েরি করে। অভিযুক্ত মাসুদ রানা মুচলেকা দিয়ে প্রতিজ্ঞা করে ভবিষ্যতে কোনো ধরনের আপত্তিকর ছবি ফেসবুকে ছড়াবে না। তিন-চার মাস ধরে মাসুদ রানা আবার ওই তরুণীর আপত্তিকর ছবি ফেসবুকের মাধ্যমে তার আত্মীয়স্বজনের কাছে পাঠানো শুরু করে। এ পরিপ্রেক্ষিতে তার মা বাদী হয়ে বাড্ডা থানায় মামলা করেন। মাসুদকে গ্রেফতারে র‌্যাব-৮ মাদারীপুর ক্যাম্পের সহযোগিতা চায় বাড্ডা থানা পুলিশ। মাদারীপুর ক্যাম্পের একটি বিশেষ আভিযানিক দল গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলার সাহেবেরচর গ্রামে অভিযান চালিয়ে মাসুদ রানাকে তার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে।

মন্তব্য করুন