নড়াইলে তিন এনজিও কর্মকর্তা কারাগারে

প্রকাশ: ১২ জুন ২০১৯      

নড়াইল ও কালিয়া প্রতিনিধি

খুলনা থেকে প্রকাশিত দৈনিক খুলনাঞ্চল পত্রিকার সম্পাদক ও বন্ধ হয়ে যাওয়া এনজিও চলন্তিকা যুব সোসাইটির তিন কর্মকর্তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। আজ তাদের রিমান্ড শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। চলন্তিকা যুব সোসাইটি নামের এনজিওর আমানতের ৩১ কোটি ৫৯ লাখ ৫৭ হাজার ৭৪০ টাকা আত্মসাতের মামলায় তারা গ্রেফতার হয়েছেন।

জানা গেছে, খুলনার হোটেল সিটি ইনের সামনে থেকে সোমবার ঢাকা সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইমের সদস্যরা প্রথমে দৈনিক খুলনাঞ্চল পত্রিকার সম্পাদক মিজানুর রহমান মিল্টন এবং চলন্তিকা যুব সোসাইটির নড়াইলের কালিয়া শাখার জিএম-২ মিলন দাস, নড়াইলের বড়দিয়া শাখার এজিএম সজল দাস এবং একই শাখার ডিএম প্রণব দাসকে গ্রেফতার করে। ওই দিন বিকেলে তাদের নড়াইল জেলার কালিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়।

কালিয়া থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, ঢাকা সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইম স্কোয়াডের এসআই অলোক চন্দ্র হালদার বাদী হয়ে সোমবার কালিয়া থানায় চলন্তিকা যুব সোসাইটির চেয়ারম্যান মো. খবিরুজ্জামান, নির্বাহী পরিচালক মো. সারোয়ার হুসাইন, সাবেক গণসংযোগ কর্মকর্তা খুলনাঞ্চল পত্রিকার সম্পাদক মিল্টনসহ ১৬ জনকে আসামি করে মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইনে মামলা করেন।