ধর্ষণচেষ্টা মামলা তুলে নিতে বাদীর ছেলেকে মারধর

প্রকাশ: ১২ জুলাই ২০১৯

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) প্রতিনিধি

মঠবাড়িয়ায় ধর্ষণচেষ্টা মামলা তুলে নিতে মামলার বাদী স্কুলশিক্ষিকার ছেলে কলেজছাত্রকে মারধর করেছে জামিনে থাকা ওই মামলার আসামি ও তার দলবল। এ ব্যাপারে ওই স্কুলশিক্ষিকা গত বুধবার রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।

পারিবারিক ও থানার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার পশ্চিম সেনেটিকিকাটা গ্রামের বিদ্যালয়ের এক শিক্ষিকাকে পূর্বশত্রুতার জেরে সম্প্রতি ধর্ষণচেষ্টা করে প্রতিবেশী মৃত ছত্তার ফরাজী ছেলে ও পার্শ্ববর্তী একটি বিদ্যালয়ের নৈশপ্রহরী দুলাল ফরাজী ও তার দলবল। এ বিষয়ে ওই শিক্ষিকা দুলালকে প্রধান আসামি করে তিনজনের বিরুদ্ধে একটি ধর্ষণচেষ্টা মামলা করলে দীর্ঘদিন হাজত বাস করে দুলাল জামিনে বেরিয়ে আসে। শিক্ষিকা জানান, জামিনে এসে দুলাল মামলা তুলে নিতে বিভিন্ন রকম ভয়ভীতিসহ হুমকি দিয়ে আসছিল। এক পর্যায়ে গত বুধবার সকালে তার ছেলেকে কলেজে যাওয়ার পথে দুলাল, এমাদুল ও তাদের দলবল বেধড়ক মারধর করে। আহত ছাত্র সরকারি হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নেয়। অভিযুক্ত দুলাল তার বিরুদ্ধে কলেজছাত্রকে মারধরের অভিযোগ অস্বীকার করে উল্টো ওই ছাত্র ও তার ফুফাত ভাইয়ের বিরুদ্ধে তার ভাই জালালকে মোটরসাইকেল চালানো অবস্থায় মারধরের অভিযোগ করে। দুলাল আরও জানায়, ওই শিক্ষিকা জমিসংক্রান্ত বিরোধের জেরে তাকে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করছেন।

মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ আব্দুল্লাহ বলেন, কলেজছাত্রকে মারধরের লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। এ ব্যাপারে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।