নোয়াখালী ও বরগুনায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

প্রকাশ: ২৫ আগস্ট ২০১৯

নোয়াখালী ও বরগুনা প্রতিনিধি

নোয়াখালী জেলা শহর এবং পৌরসভার সোনাপুর এলাকার স্থায়ী জলাবদ্ধতা ও যানজট নিরসনের লক্ষ্যে খাল দখল করে এর ওপর ও সড়কের পাশে গড়ে ওঠা শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়েছে। শনিবার সকাল থেকে শহরের সোনাপুরে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়। নোয়াখালী জেলা প্রশাসন, নোয়াখালী পৌরসভা ও সেনাবাহিনীর যৌথ উদ্যোগে শনিবার সকাল ৯টা থেকে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়েছে।

জেলা শহরের আশপাশের প্রায় সব খালই অবৈধভাবে দখল হয়ে আছে। এসব খালের ওপর স্থাপনা গড়ে ওঠায় বর্ষায় স্থায়ী জলাবদ্ধতা দেখা দেয় নোয়াখালী পৌর শহরে। সড়ক ঘেঁষে দোকান গড়ে ওঠায় যানজটও নিয়মিত সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। অবশেষে এসব স্থাপনা উচ্ছেদ করে পানির স্বাভাবিক প্রবাহ ঠিক রাখতে এবং যানজট নিরসনে সড়কের পাশ থেকে শতাধিক অবৈধ স্থাপনা গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়।

এদিকে, বরগুনা জেলা শহরের ভাড়ানী খাল দখল করে গড়ে ওঠা অর্ধশতাধিক অবৈধ স্থাপনা গুঁড়িয়ে দিয়েছে জেলা প্রশাসন। শনিবার সকাল থেকে বরগুনা জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহর নেতৃত্বে এ উচ্ছেদ অভিযান চালানো হয়। বরগুনা সদরের ইউএনও মো. আনিচুর রহমান জানান, বরগুনা শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত ভাড়ানী খালের দু'পাড় দখল করে গড়ে তোলা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়েছে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।