ঝুঁকিপূর্ণ সেতুতে যান চলাচল

বুড়িচং

প্রকাশ: ২৫ আগস্ট ২০১৯

বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি

বুড়িচং উপজেলা সদর থেকে শঙ্কুচাইল পর্যন্ত সড়কটির রাজাপুর রেলস্টেশনের পাশে একটি সেতু ৫ বছর ধরে ভেঙে আছে। প্রতিদিন ওই সড়কে ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে হাজারো যানবাহন। কিন্তু সংশ্নিষ্ট কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় সেতুটি সংস্কার করা হচ্ছে না।

উপজেলার রাজাপুর রেলস্টেশনের পাশ থেকে উপজেলা সদর আসার সড়কটির রাজাপুর এলাকায় সেতুটির মাঝখানের অংশ দীর্ঘদিন ধরে ভেঙে আছে। এ সড়ক দিয়ে চলাচলরত গাড়িগুলো ব্রিজের ওপর দিয়ে চরম ঝুঁকিতে পারাপার হচ্ছে। স্থানীয় রাজাপুর গ্রামের শাহআলম জানান, ৫ বছর আগে ব্রিজের মাঝামাঝি স্থান প্রথমে ভেঙে যায়। আস্তে আস্তে তা বড় হতে থাকে। একপর্যায়ে ওই ব্রিজটি দিয়ে গাড়ি চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর ২০১৮ সালের প্রথম দিকে লাকসাম-আখাউড়া রেলওয়ের ডাবল লাইনের কাজের ঠিকাদার কর্তৃপক্ষ তাদের মালপত্র পরিবহনের সুবিধার্থে ভাঙা অংশে স্টিলের পাত দেয়। এতে ফের ওই সড়কে গাড়ি চলাচল শুরু হয়। বর্তমানে ব্রিজের ওপর বিভিন্ন ধরনের যানবাহন উঠলে স্টিলের পাতগুলো নড়াচড়া করে। ফলে যে কোনো সময় ব্রিজটিতে ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা। ওই সড়কের সিএনজিচালিত অটোরিকশাচালক আবুল কালাম জানান, বুড়িচং থেকে শঙ্কুচাইল পর্যন্ত ওই সড়কটিতে প্রতিদিন সহস্রাধিক অটোরিকশা, মাইক্রোবাস, পিকআপ, ট্রাক্টর, মোটরসাইকেলে করে হাজার হাজার মানুষ চলাচল করে। ওই ব্রিজটি ভেঙে যাওয়ার কারণে গাড়ি চলাচলে সমস্যা হচ্ছে।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলী জিহান আল তুহিন বলেন, ব্রিজটির  জন্য বরাদ্দ চেয়ে চিঠি দেওয়া হয়েছে। বরাদ্দ পেলে নতুন ব্রিজের নির্মাণ কাজ শুরু করব।