নোয়াখালীতে ব্যবসায়ী হত্যার দায়ে দু'জনের যাবজ্জীবন

প্রকাশ: ২৬ আগস্ট ২০১৯      

নোয়াখালী প্রতিনিধি

নোয়াখালী সদর উপজেলার জ্বালানি তেল ব্যবসায়ী আরিফ হোসেনকে হত্যার দায়ে দু'জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। রোববার দুপুরে নোয়াখালীর অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ প্রথম আদালতের বিচারক মোহাম্মদ ফারুক এ রায় ঘোষণা করেন। যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলো- সদর উপজেলার ধর্মপুর ইউনিয়নের চরদরবেশ গ্রামের হেলাল উদ্দিনের ছেলে আরিফুর রহমান পিয়াস ও একই গ্রামের মোতাহের হোসেনের ছেলে মোরশেদ আলী সুমন। দণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামিই পলাতক।

এ সময় তাদেরকে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক বছর করে বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। এ ছাড়া দণ্ডবিধির ৪১১ ধারায় দোষী সাব্যস্ত করে উভয় আসামিকে তিন বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড এবং ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা ও অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

আদালতের বেঞ্চ সহকারী জাকারুল ইসলাম বলেন, নিহত ব্যবসায়ী আরিফ ভাইদের সঙ্গে জ্বালানি তেলের ব্যবসা করতেন। তিনি ২০১৪ সালের ১৭ এপ্রিল তেল বিক্রির বাকি টাকা আনতে গিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন। এ ঘটনায় নিহতের ভাই আমির হোসেন সুধারাম মডেল থানায় জিডি করেন। পরদিন ১৮ এপ্রিল চরদরবেশ গ্রামের আসামি আশিকুর রহমান পিয়াসের বসতঘরের পাশে কচুখেত থেকে মাটি খুঁড়ে নিখোঁজ আরিফের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় ওই দিনই আমির হোসেন ছয়জনকে আসামি করে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।