গোপালগঞ্জে গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ

প্রকাশ: ৩১ জুলাই ২০২০

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে পিংকি বেগম (২২) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। স্বামী ও তার শ্বশুরবাড়ির লোকজন শ্বাসরোধ ও নির্যাতন করে তাকে হত্যা করেছে বলে পিংকির ভাই সুমন সরদার অভিযোগ করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে দক্ষিণ ফুকরা গ্রামের শ্বশুরবাড়ি থেকে পিংকির লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় পিংকির স্বামী জুয়েল মোল্যাকে (২৪) আটক করেছে পুলিশ। পিংকি একই উপজেলার আড়ূয়াকান্দি গ্রামের নজির সরদারের মেয়ে।

পিংকির ভাই সুমন সরদার বলেন, বুধবার রাত আড়াইটার দিকে পিংকি আত্মহত্যা করেছে বলে জুয়েল আমাকে ফোন করে জানায়। আমার বোনকে তার স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির লোকজন হত্যা করে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছে।

কাশিয়ানী থানার রামদিয়া পুলিশ ফাঁড়ির এসআই প্রকাশ চন্দ্র বোস জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, ওই গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলেই মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।