বারহাট্টায় পারিবারিক বিরোধের জেরে লাকী আক্তারকে মঙ্গলবার রাতে পরিবারের লোকজন কুপিয়ে জখম করেছে। তাকে নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

উপজেলার দেউলীবাজার অটোবাইক চালক মাহবুবের স্ত্রী লাকী আক্তারের সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে তার পরিবারের অন্য সদস্যদের দ্বন্দ্ব চলছিল। মঙ্গলবার রাতে শাশুড়ি-ননদ ও দেবররা মিলে তার ওপর হামলা চালায় এবং মারধর করে। স্বামী বাড়িতে এসে প্রতিবাদ করলে তাকে বেঁধে লাকীকে দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে হামলাকারীরা এবং হত্যার হুমকি দেয়। পরে আহত লাকীকে রাতেই নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মাহবুব বলেন, লাকী বিদেশ থাকত। বিদেশ থেকে ফিরে আসার পর তার ও আমার জমানো টাকা মিলিয়ে একটি ঘর নির্মাণ করি। আমি ঋণ করে টাকা জোগাড় করি। ভালোই চলছিল আমাদের সংসার। লাকী তার টাকা-পয়সা দিয়ে আমার মা, ভাই-বোন সকলকেই যতটুকু পারে সাহায্য করেছে। ঘর নির্মাণের পর লাকীর টাকা শেষ হয়ে যায়। এর পর থেকেই তার ওপর আমার মা, ভাইবোনেরা অত্যাচার শুরু করে।

মন্তব্য করুন